বাংলাদেশ ০৯:১০ পূর্বাহ্ন, শনিবার, ২৪ ফেব্রুয়ারী ২০২৪, ১২ ফাল্গুন ১৪৩০ বঙ্গাব্দ
নোটিশ :

সাংবাদিক নিয়োগ চলছে,, সাংবাদিক নিয়োগ চলছে,,০১৯৯৯-৯৫৩৯৭০, ০১৭১২-৪৪৬৩০৬,০১৭১১-০০৬২১৪ সম্পাদক

     
ব্রেকিং নিউজ ::
নারায়ণগঞ্জ সাংবাদিক ফেরামের কার্যালয় উদ্বোধন ও মিলাদ মাহফিল অনুষ্ঠিত পটুয়াখালী পৌরসভার ১০ কোটি টাকা বিদ্যুৎ বিল বকেয়া, সারারাত জ্বলে কোম্পানির বিলবোর্ড। বরগুনা রিপোর্টার্স ইউনিটিতে সাংসদ গোলাম সরোয়ার টুকু’র শুভেচ্ছা বিনিময় নজরুল বিশ্ববিদ্যালয় কেন্দ্রে অনুষ্ঠিত হলো ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের ভর্তি পরীক্ষা  ইউএস অ্যাগ্রিমেন্টে অ্যাপস প্রতারণায় রাজশাহীতে ১০ মামলা নারায়ণগঞ্জে শ্রমিকদের বেতন ভাতা ও ঘোষিত মজুরি বাস্তবায়নের জন্য জনসভা আরএমপি’র কমিশনারসহ ৬ পুলিশ সদস্য পেলেন বিপিএম-পিপিএম পদক রাজশাহীতে প্রতিবছর বাড়ছে পেঁয়াজ বীজের চাষ এসএসসি ’৯৪ ব্যাচের প্রয়াত বন্ধুদের স্মরণানুষ্ঠান হত্যা মামলার দীর্ঘ ২৩ বছর যাবত পলাতক আসামী নজরুল মাঝি গ্রেফতার।  আমতলীতে গরুসহ চোর গ্রেপ্তার অপরূপ সৌন্দর্যে ঘেরা রাঙ্গাবালী, হতে পারে পর্যটনের কেন্দ্রবিন্দু। বুড়িচংয়ে বিল্লাল হোসেন ঠিকাদার ডাবল হোল্ডা কাপ ফুটবল টুর্নামেন্ট উদ্বোধন রায়গঞ্জে এনডিপির উদ্যোগে মিনি ম্যারাথন অনুষ্ঠিত এক প্রার্থীর বিরুদ্ধে কালো টাকা ছড়ানোর তুলে এক নারী মেয়র প্রার্থীর প্রার্থীতা প্রত্যাহার

ভান্ডারিয়ায় নিজাম বাহিনীর অত্যাচারে ঘর তুলতে পাড়ছে না একটি অসহায় পরিবার: হুমকিতে বাড়ি ছাড়া

  • নিজস্ব সংবাদ :
  • আপডেট সময় ১১:৩৯:৪৬ অপরাহ্ন, মঙ্গলবার, ২৯ মার্চ ২০২২
  • ১৬৬৮ বার পড়া হয়েছে

ভান্ডারিয়ায় নিজাম বাহিনীর অত্যাচারে ঘর তুলতে পাড়ছে না একটি অসহায় পরিবার: হুমকিতে বাড়ি ছাড়া

 

ভান্ডারিয়া প্রতিনিধিঃ পিরোজপুরের ভান্ডারিয়া উপজেলার ইকড়ি গ্রামে এক প্রভাবশালীর অত্যাচার ও হুমকিতে বাড়ি ছাড়া একটি অসহায় পরিবার। ওই প্রভাবশালীর হামলা মামলা ও হুমকিতে মানবেতর জীবন যাপন করছে পরিবারটি বলে অভিযোগ পাওয়া গেছে। জানাযায়, উপজেলার ইকড়ি গ্রামের মৃত ছোবহান খলিফার ছেলে নিজাম খলিফা ও মৃত মেনাজ উদ্দিন ফরাজীর মেয়ে পারুল বেগমের মধ্যে জমিজমা নিয়ে বিরোধ চলে আসছে। এর জের ধরে অসহায় পারুল বেগমের পরিবারের ওপর কয়েক দফা হামলা ও মামলা দিয়ে হয়রানী করে আসছে প্রভাবশালী নিজাম খলিফা ও তার বাহিনী।

 

তাদের নির্যাতন অত্যাচারে ওই পরিবারটি অন্যত্র পালিয়ে গিয়ে মানবেতর জীবন যাপন করছে। ভুক্তভোগি পারুল বেগমের অভিযোগ, আমাদের পৈত্রিক সম্পত্তিতে আমরা পরিবার পরিজন নিয়ে গত ১ শ’ বছর ধরে বসবাস করে আসছি। কিন্ত সম্প্রতি আমরা পুরাতন বসতঘর ভেঙে নতুন ঘর তৈরি করতে গেলে ঘর উঠাতে বাধা প্রদান করে স্থানীয় সন্ত্রাসী নিজাম খলিফা। তার কর্মকান্ডে প্রতিবাদ করলে নিজাম খলিফা ২ লাখ টাকা চাঁদা দাবি করে এবং টাকা দিলে ঘর তুলতে দিবে বলে জানায়। আমি দিতে অস্বীকার জানালে তারা আমাকে সহ পরিবারের ওপর দেশিও অস্ত্র নিয়ে হামলা করে এবং ঘর নির্মান বন্ধ করে দেয় ।

 

 

তাদের ভয়ে পরিবার পরিজন নিয়ে আমরা অন্যত্র বসবাস করছি। ওই নিজাম গত বছর আমাদের নামে মিথ্যা মামলা দিয়ে আমার ভাই ও বোনের মেয়েকে জেলে পাঠিয়েছে। এখন আবার নানান ভাবে হয়রানি করা শুরু করেছে। তাদেও অত্যাচারে আমার স্বামী গ্রাম ছাড়া। পারুল আরো জানান, এ বিষয়ে প্রতিকার ও বিচার চেয়ে উপজেলা নিবার্হী অফিসারের বরাবরে আবেদন করলে তিনি ভান্ডারিয়া থানার ওসির কাছে পাঠায় এবং ঘটনাস্থলে থানা পুলিশ পরির্দশন করলেও কোন সিদ্ধান্ত দেয়নি। এ ব্যপারে অভিযুক্ত নিজাম খলিফার কাছে মুঠোফোনে জানতে চাইলে তিনি ওই পরিবারে ওপর নির্যাতনের বিষয়টি কৌশলে এড়িয়ে যান এবং চাঁদা দাবীর কথা অস্বীকার করেন।

 

 

 

আপলোডকারীর তথ্য

Banglar Alo News

hello
জনপ্রিয় সংবাদ

নারায়ণগঞ্জ সাংবাদিক ফেরামের কার্যালয় উদ্বোধন ও মিলাদ মাহফিল অনুষ্ঠিত

ভান্ডারিয়ায় নিজাম বাহিনীর অত্যাচারে ঘর তুলতে পাড়ছে না একটি অসহায় পরিবার: হুমকিতে বাড়ি ছাড়া

আপডেট সময় ১১:৩৯:৪৬ অপরাহ্ন, মঙ্গলবার, ২৯ মার্চ ২০২২

 

ভান্ডারিয়া প্রতিনিধিঃ পিরোজপুরের ভান্ডারিয়া উপজেলার ইকড়ি গ্রামে এক প্রভাবশালীর অত্যাচার ও হুমকিতে বাড়ি ছাড়া একটি অসহায় পরিবার। ওই প্রভাবশালীর হামলা মামলা ও হুমকিতে মানবেতর জীবন যাপন করছে পরিবারটি বলে অভিযোগ পাওয়া গেছে। জানাযায়, উপজেলার ইকড়ি গ্রামের মৃত ছোবহান খলিফার ছেলে নিজাম খলিফা ও মৃত মেনাজ উদ্দিন ফরাজীর মেয়ে পারুল বেগমের মধ্যে জমিজমা নিয়ে বিরোধ চলে আসছে। এর জের ধরে অসহায় পারুল বেগমের পরিবারের ওপর কয়েক দফা হামলা ও মামলা দিয়ে হয়রানী করে আসছে প্রভাবশালী নিজাম খলিফা ও তার বাহিনী।

 

তাদের নির্যাতন অত্যাচারে ওই পরিবারটি অন্যত্র পালিয়ে গিয়ে মানবেতর জীবন যাপন করছে। ভুক্তভোগি পারুল বেগমের অভিযোগ, আমাদের পৈত্রিক সম্পত্তিতে আমরা পরিবার পরিজন নিয়ে গত ১ শ’ বছর ধরে বসবাস করে আসছি। কিন্ত সম্প্রতি আমরা পুরাতন বসতঘর ভেঙে নতুন ঘর তৈরি করতে গেলে ঘর উঠাতে বাধা প্রদান করে স্থানীয় সন্ত্রাসী নিজাম খলিফা। তার কর্মকান্ডে প্রতিবাদ করলে নিজাম খলিফা ২ লাখ টাকা চাঁদা দাবি করে এবং টাকা দিলে ঘর তুলতে দিবে বলে জানায়। আমি দিতে অস্বীকার জানালে তারা আমাকে সহ পরিবারের ওপর দেশিও অস্ত্র নিয়ে হামলা করে এবং ঘর নির্মান বন্ধ করে দেয় ।

 

 

তাদের ভয়ে পরিবার পরিজন নিয়ে আমরা অন্যত্র বসবাস করছি। ওই নিজাম গত বছর আমাদের নামে মিথ্যা মামলা দিয়ে আমার ভাই ও বোনের মেয়েকে জেলে পাঠিয়েছে। এখন আবার নানান ভাবে হয়রানি করা শুরু করেছে। তাদেও অত্যাচারে আমার স্বামী গ্রাম ছাড়া। পারুল আরো জানান, এ বিষয়ে প্রতিকার ও বিচার চেয়ে উপজেলা নিবার্হী অফিসারের বরাবরে আবেদন করলে তিনি ভান্ডারিয়া থানার ওসির কাছে পাঠায় এবং ঘটনাস্থলে থানা পুলিশ পরির্দশন করলেও কোন সিদ্ধান্ত দেয়নি। এ ব্যপারে অভিযুক্ত নিজাম খলিফার কাছে মুঠোফোনে জানতে চাইলে তিনি ওই পরিবারে ওপর নির্যাতনের বিষয়টি কৌশলে এড়িয়ে যান এবং চাঁদা দাবীর কথা অস্বীকার করেন।