বাংলাদেশ ১২:৩১ অপরাহ্ন, রবিবার, ২১ জুলাই ২০২৪, ৬ শ্রাবণ ১৪৩১ বঙ্গাব্দ
নোটিশ :

সাংবাদিক নিয়োগ চলছে,, সাংবাদিক নিয়োগ চলছে,,০১৯৯৯-৯৫৩৯৭০, ০১৭১২-৪৪৬৩০৬,০১৭১১-০০৬২১৪ সম্পাদক

     
ব্রেকিং নিউজ ::
মুন্সীগঞ্জ সদর ইউএনওর চরডুমুরিয়া সরকারী প্রাথমিক বিদ্যালয় পরিদর্শন সন্ধ্যার মধ্যে উপাচার্য, শিক্ষক, কর্মকর্তা-কর্মচারীদের বাসভবন ছাড়ার আল্টিমেটাম কুবি শিক্ষার্থীদের রাবিতে জড়ো হওয়া আন্দোলনকারীদের পুলিশ-বিজিবির ধাওয়া মেহেন্দিগঞ্জে অজ্ঞাতনামা নারীর অর্ধগলিত লাশ উদ্ধার। মুন্সীগঞ্জে গায়েবানা জানাযা থেকে ঈমাম ও বিএনপি নেতাকে ধরে নিয়ে গেলো পুলিশ কোটা আন্দোলনের পক্ষে সংহতি জানিয়ে ফেনী ইউনিভার্সিটির বর্তমান ও প্রাক্তন শিক্ষার্থীদের বিবৃতি চলমান পরিস্থিতিতে রাবি ক্যাম্পাসে ছাত্র রাজনীতি আপাতত স্থগিত: উপাচার্য বিদেশের পাঠানো টাকা চাইতে গিয়ে বিপাকে প্রবাসী স্বামী রাজশাহীতে ধর্মীয় ভাবগাম্ভীর্যের মধ্য দিয়ে পবিত্র আশুরা পালিত চট্রগ্রামের কোটা সংস্কার আন্দোলনে নিহত ওয়াসিমের জানাজায় মানুষের ঢল পিরোজপুরের মঠবাড়িয়া পৌরসভার রাস্তায় সমবায় সমিতি ভবনের ট্যাংকির ময়লা: জনদুর্ভোগ মুন্সীগঞ্জে কোটা সংস্কার আন্দোলনকারীদের উপর হামলা, আহত ৫ হরিপুরে, প্রগতি লাইফ ইন্স্যুরেন্স লিমিটেড এর পক্ষ থেকে কর্মী মিটিং ও গ্রাহক সমাবেশ অনুষ্ঠিত। গৌরীপুরে উদীচী কার্য়ালয়ে হামলা ও ভাংচুর স্ত্রীর যৌতুক মামলায় প্রাথমিক বিদ্যালয়ের শিক্ষক কারাগারে

ভোলার নবীপুরে সেনা সদস্যের নেত্রীত্বে দিনমজুরের পরিবারে উপর হামলা ॥

  • নিজস্ব সংবাদ :
  • আপডেট সময় ০৩:৩০:০১ অপরাহ্ন, শুক্রবার, ৪ মার্চ ২০২২
  • ১৭০০ বার পড়া হয়েছে

ভোলার নবীপুরে সেনা সদস্যের নেত্রীত্বে দিনমজুরের পরিবারে উপর হামলা ॥

 

 

 

 

আশিকুর রহমান শান্ত ভোলা প্রতিনিধি

 

আহত-৩ ভোলা সদর উপজেলার ধনিয়া ইউনিয়নের ৯নং ওয়ার্ডের নবীপুর গ্রামে সেনা সদস্য বিল্লাল এর নেত্রীত্বে দিনমজুর জয়নাল আবেদীন এর পরিবারে উপর হামলা চালিয়ে পিটিয়ে ৩ জন কে আহত করে, এবং জানে মেরে ফেলার হুমকি দেওয়ার অভিযোগ পাওয়া গেছে।

 

 

 

বৃহস্পতিবার (৩ মার্চ) সকাল ৯ টার সময় সেনা সদস্য বিল্লাল হোসেনের (৩৭) নেতৃত্বে দিনমজুর জয়নাল আবেদীন (৬৫) এর পৈত্রিক মালিকানাধীন জমির উপরে জোরপূর্বক ঘর তুলতে যায়, ঘর তুলতে বাধা দিলে হাশেমী মিকার (৫৫) এর হুকুমে সেনা সদস্য বিল্লাল হোসেনের নেতৃত্বে নুরুল ইসলাম ওরফে রিয়াদ (৩০) ও আমান (৩৪) গংরা জয়নাল আবেদীন এর পরিবারের উপর হামলা চালিয়ে জয়নাল আবেদনী এর স্ত্রী হাসিনা বেগম (৫৫) তার ভাইর স্ত্রী মনোয়ারা বেগম (৫০) এবং তার ছেলে রুবেল (৩০) কে পিটিয়ে আহত করে।

 

 

এবং রুবেল এর গলায় থাকা ৮ আনি সোনার চেইন চিনিয়ে নিয়ে যায় বলে অভিযোগ করেন ভুক্তভোগি পরিবার। এ ব্যাপারে ভোলা সদর থানায় একটি অভিযোগ দায়েল করা হয়েছে। সরজমি গুরে জানা যায় ধনিয়া ইউনিয়নের নবীপুর গ্রামের জয়নাল আবেদীন এর পৈত্রিক মালিকানাধীন জমি প্রায় ১০/১২ বছর যাবত জোরপূর্বক দখল করে ভোগ দখল করছেন হাসেম মিকার গংরা। কিছু দিন আগে হাসেম মিকার গংদের কে জয়নাল আবেদীনদের জমি বুঝিয়ে দিতে বললে তারা বিভিন্ন তালবাহানা করে, কিন্তু জমি বুঝিয়ে দেয় না।

 

 

বিষয় টি স্থানীয় মেম্বার ও চেয়ারম্যান কে অবহিত করেছেন বলে জানান স্থানীয়রা। এ বিষয় চেয়ারম্যান এমদাদ হোসেন কবির বলেন, বিষয় টি আমাকে জানানো হয়েছে, বিষয় টি জানার পর আমি হাসেম মিকার গংদের কে পয়সালা না হওয়া প্রর্যন্ত ঘরের কাজ বন্ধ রাখতে অনুরোধ করি এবং গত মোঙ্গলবার বসার জন্য তারিখ দেই। কিন্তু সেই দিন হাসেম মিকার গংরা আসে নি। তারা না এসে আমার এবং মেম্বারের কথা অমান্য করে ঘরের কাজ করছে। সেখানে আজ সকালে কাজে বাধা দিতে গেলে তারা জয়নাল আবেদীন এর পরিবারের সদস্যদের পিটিয়ে আহত করে বলে শুনেছি। পরে স্থানীয়রা এসে তাদের কে উদ্ধার করে ভোলা সদর হাসপাতালে ভর্তি করেন। একই কথা জানান ঐ ওয়ার্ডের মেম্বার বশার। নাম প্রকাশ না করা শর্তে স্থানীয় একজন জানান, বিগত দিনে হাসেম মিকার গংরা জয়নাল আবেদীন এর পরিবার কে তাদের মালিকানাধীন ভোগ দখলীয় জমি হতে সুমুলে উৎখাত করার জন্য হামলা মামলাসহ বিভিন্ন ভাবে তাদের নির্যাতন করতে থাকে।

 

 

 

এ ব্যাপারে জয়নাল আবেদীন এর পরিবার এলাকার গন্যমান্যদের একাধিকবার অবগত করলেও কোন প্রকার সু-ফল মেলেনি তাদের ভাগ্যে। ভোলা সদর মডেল থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) এনায়েত হোসেন জানান,থানায় একটি অভিযোগ দাযেল করা হয়েছে। আমরা অভিযোগ টি তদন্ত করে আইন গত ব্যবস্থা নিবো। অভিযোগের বিষয় হাসেম গংদের কাছে জানতে চাইলে সেনা সদস্য বিল্লাল হোসেন বলেন আমি সেনাবাহিনী, আমি আমার ঘর তুলবোই এখানে কেউ কাজ করতে মানা করলেই কি আমি মানবো। আমি কাজ করবোই কেউ পারলে কিছু করুক। অনেক বছর ধরে জমি বুঝিয়ে না দেওয়ার বিষয় হাসেম মিকারের কাছে জানতে চাইলে তিনি কোন সদ উত্তর দিতে পারেন নি। তবে এ ব্যাপারে তদন্ত সাপেক্ষে প্রশাসনের উর্ধ্বতন কর্তৃপক্ষের হস্তক্ষেপ কামানা করেন দিনমুজুর জয়নাল আবেদীন এর পরিবার।

জনপ্রিয় সংবাদ

মুন্সীগঞ্জ সদর ইউএনওর চরডুমুরিয়া সরকারী প্রাথমিক বিদ্যালয় পরিদর্শন

ভোলার নবীপুরে সেনা সদস্যের নেত্রীত্বে দিনমজুরের পরিবারে উপর হামলা ॥

আপডেট সময় ০৩:৩০:০১ অপরাহ্ন, শুক্রবার, ৪ মার্চ ২০২২

 

 

 

 

আশিকুর রহমান শান্ত ভোলা প্রতিনিধি

 

আহত-৩ ভোলা সদর উপজেলার ধনিয়া ইউনিয়নের ৯নং ওয়ার্ডের নবীপুর গ্রামে সেনা সদস্য বিল্লাল এর নেত্রীত্বে দিনমজুর জয়নাল আবেদীন এর পরিবারে উপর হামলা চালিয়ে পিটিয়ে ৩ জন কে আহত করে, এবং জানে মেরে ফেলার হুমকি দেওয়ার অভিযোগ পাওয়া গেছে।

 

 

 

বৃহস্পতিবার (৩ মার্চ) সকাল ৯ টার সময় সেনা সদস্য বিল্লাল হোসেনের (৩৭) নেতৃত্বে দিনমজুর জয়নাল আবেদীন (৬৫) এর পৈত্রিক মালিকানাধীন জমির উপরে জোরপূর্বক ঘর তুলতে যায়, ঘর তুলতে বাধা দিলে হাশেমী মিকার (৫৫) এর হুকুমে সেনা সদস্য বিল্লাল হোসেনের নেতৃত্বে নুরুল ইসলাম ওরফে রিয়াদ (৩০) ও আমান (৩৪) গংরা জয়নাল আবেদীন এর পরিবারের উপর হামলা চালিয়ে জয়নাল আবেদনী এর স্ত্রী হাসিনা বেগম (৫৫) তার ভাইর স্ত্রী মনোয়ারা বেগম (৫০) এবং তার ছেলে রুবেল (৩০) কে পিটিয়ে আহত করে।

 

 

এবং রুবেল এর গলায় থাকা ৮ আনি সোনার চেইন চিনিয়ে নিয়ে যায় বলে অভিযোগ করেন ভুক্তভোগি পরিবার। এ ব্যাপারে ভোলা সদর থানায় একটি অভিযোগ দায়েল করা হয়েছে। সরজমি গুরে জানা যায় ধনিয়া ইউনিয়নের নবীপুর গ্রামের জয়নাল আবেদীন এর পৈত্রিক মালিকানাধীন জমি প্রায় ১০/১২ বছর যাবত জোরপূর্বক দখল করে ভোগ দখল করছেন হাসেম মিকার গংরা। কিছু দিন আগে হাসেম মিকার গংদের কে জয়নাল আবেদীনদের জমি বুঝিয়ে দিতে বললে তারা বিভিন্ন তালবাহানা করে, কিন্তু জমি বুঝিয়ে দেয় না।

 

 

বিষয় টি স্থানীয় মেম্বার ও চেয়ারম্যান কে অবহিত করেছেন বলে জানান স্থানীয়রা। এ বিষয় চেয়ারম্যান এমদাদ হোসেন কবির বলেন, বিষয় টি আমাকে জানানো হয়েছে, বিষয় টি জানার পর আমি হাসেম মিকার গংদের কে পয়সালা না হওয়া প্রর্যন্ত ঘরের কাজ বন্ধ রাখতে অনুরোধ করি এবং গত মোঙ্গলবার বসার জন্য তারিখ দেই। কিন্তু সেই দিন হাসেম মিকার গংরা আসে নি। তারা না এসে আমার এবং মেম্বারের কথা অমান্য করে ঘরের কাজ করছে। সেখানে আজ সকালে কাজে বাধা দিতে গেলে তারা জয়নাল আবেদীন এর পরিবারের সদস্যদের পিটিয়ে আহত করে বলে শুনেছি। পরে স্থানীয়রা এসে তাদের কে উদ্ধার করে ভোলা সদর হাসপাতালে ভর্তি করেন। একই কথা জানান ঐ ওয়ার্ডের মেম্বার বশার। নাম প্রকাশ না করা শর্তে স্থানীয় একজন জানান, বিগত দিনে হাসেম মিকার গংরা জয়নাল আবেদীন এর পরিবার কে তাদের মালিকানাধীন ভোগ দখলীয় জমি হতে সুমুলে উৎখাত করার জন্য হামলা মামলাসহ বিভিন্ন ভাবে তাদের নির্যাতন করতে থাকে।

 

 

 

এ ব্যাপারে জয়নাল আবেদীন এর পরিবার এলাকার গন্যমান্যদের একাধিকবার অবগত করলেও কোন প্রকার সু-ফল মেলেনি তাদের ভাগ্যে। ভোলা সদর মডেল থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) এনায়েত হোসেন জানান,থানায় একটি অভিযোগ দাযেল করা হয়েছে। আমরা অভিযোগ টি তদন্ত করে আইন গত ব্যবস্থা নিবো। অভিযোগের বিষয় হাসেম গংদের কাছে জানতে চাইলে সেনা সদস্য বিল্লাল হোসেন বলেন আমি সেনাবাহিনী, আমি আমার ঘর তুলবোই এখানে কেউ কাজ করতে মানা করলেই কি আমি মানবো। আমি কাজ করবোই কেউ পারলে কিছু করুক। অনেক বছর ধরে জমি বুঝিয়ে না দেওয়ার বিষয় হাসেম মিকারের কাছে জানতে চাইলে তিনি কোন সদ উত্তর দিতে পারেন নি। তবে এ ব্যাপারে তদন্ত সাপেক্ষে প্রশাসনের উর্ধ্বতন কর্তৃপক্ষের হস্তক্ষেপ কামানা করেন দিনমুজুর জয়নাল আবেদীন এর পরিবার।