বাংলাদেশ ০৮:২৪ অপরাহ্ন, সোমবার, ২৬ ফেব্রুয়ারী ২০২৪, ১৪ ফাল্গুন ১৪৩০ বঙ্গাব্দ
নোটিশ :

সাংবাদিক নিয়োগ চলছে,, সাংবাদিক নিয়োগ চলছে,,০১৯৯৯-৯৫৩৯৭০, ০১৭১২-৪৪৬৩০৬,০১৭১১-০০৬২১৪ সম্পাদক

     
ব্রেকিং নিউজ ::
চলতি মৌসুমে ভুট্টার বাম্পার ফলনের আশা করছেন রায়গঞ্জের কৃষকেরা রক্তদানের মাধ্যমে টিউমার রোগীর অপারেশনে সহায়তা করলেন শিক্ষার্থী দেবাশীষ॥ ফুলবাড়ীর বারোকোন গ্রামে ক্রয়কৃত জমির প্রতিপক্ষের গাছ কর্তন।  গলাচিপায় এক সন্তানের জননীকে মধ্যযুগীয় কায়দায় মারধর সিংগাইরে আল ইহসান সমবায় সমিতির সভাপতির বিরুদ্ধে গ্রাহকদের লাখ লাখ টাকা আত্নসাতের অভিযোগ সালথার জয়ঝাফ উচ্চ বিদ্যালয়ের ক্রীড়া প্রতিযোগিতা । ত্রিশাল পৌরসভার উপ-নির্বাচনে প্রচারণায় ব্যস্ত মেয়র প্রার্থী আমিন সরকার  পবিত্র শবে বরাত উপলক্ষে ছিল নানান আয়োজন, আজ বেশিভাগ ধর্মপ্রাণ মানুষেরা রোজা রেখেছেন ভর্তি পরীক্ষা : গুচ্ছভুক্ত ২৪ বিশ্ববিদ্যালয়ের আবেদনের সময় বাড়ল মোটরসাইকেলের জন্য ওয়ার্কসপ কর্মচারী নাহিদকে হত্যা, গ্রেপ্তার ৫। কাউনিয়ায় দৈনিক যুগান্তরের প্রতিষ্ঠা বার্ষিকী উদযাপন  কাউখালীতে অটো টেম্পু মালিক সমিতির সদস্যর মৃত্যুতে স্মরণসভা অনুষ্ঠিত। মধ্যপাড়া খনিজ শিল্পাঞ্চলে যুব সংঘের বিরুদ্ধে বিভ্রান্তীমূলক অপপ্রচারের বিরুদ্ধে মানববন্ধন ও প্রতিবাদ সভা  জাতির পিতার সমাধিতে নেত্রকোনা-১ এবং ময়মনসিংহ- ১০ আসনের সংসদ সদস্যদের শ্রদ্ধা নিবেদন। কাউখালীতে ব্রীজ নির্মান কাজ ৫ বছরে শেষ না হওয়ায় জনগনের ভোগান্তি চরমে।

ভূরুঙ্গামারীতে ঈদ আনন্দে সোনাহাট সেতু পাড়ে দর্শনার্থীদের উপচে পড়া ভীড় 

  • নিজস্ব সংবাদ :
  • আপডেট সময় ০৮:০৪:২৬ অপরাহ্ন, বুধবার, ৪ মে ২০২২
  • ১৬৯০ বার পড়া হয়েছে

ভূরুঙ্গামারীতে ঈদ আনন্দে সোনাহাট সেতু পাড়ে দর্শনার্থীদের উপচে পড়া ভীড় 

ভূরুঙ্গামারী (কুড়িগ্রাম) প্রতিনিধিঃ
কুড়িগ্রামের ভূরুঙ্গামারীতে ঈদ আনন্দে ঈদের দ্বিতীয় দিনেও দর্শনার্থীদের উপচে পড়া ভীরে মুখরিত হয়ে ওঠেছে দুধকুমার নদের তীর। দর্শনার্থীদের পদচারণায় মুখরিত হয়ে উঠেছে সোনাহাট রেল সেতুর দুই পাড়। সোনাহাট স্থলবন্দর ও জিরো পয়েন্টেও বিনোদন প্রেমীদের উপস্থিত ছিলো চোখে পড়ার মতো। গোটা উপজেলার কোথাও বিনোদনের জন‍্য কোন পার্ক না থাকায় পরিবার-পরিজন নিয়ে ঘুরতে ও ঈদ উদযাপন করতে এখানে এসেছেন শত শত লোক। দুধকুমার নদের জেগে ওঠা চরে  মনোরম দৃশ্য দেখে আনন্দঘন সময় কাটিয়েছেন বিনোদন প্রেমীরা। শতবর্ষী সোনাহাট রেল সেতুর পাশেই নির্মিত হচ্ছে নতুন একটি গার্ডার ব্রীজ। সেখানকার নির্মিতব‍্য নানা সরঞ্জামাদি দেখতেও ভীড় জমিয়েছেন দর্শনার্থীরা।
সরেজমিনে গিয়ে দেখা যায়, ঈদের দিন ও ঈদের পর দিনও শত শত মানুষ পরিবার-পরিজন, বন্ধু-বান্ধব নিয়ে সকাল থেকে রাত পর্যন্ত সময় কাটাচ্ছেন। উপজেলার বাইরেও দুরদুরান্ত থেকে নিজস্ব মোটরসাইকেল, প্রাইভেট কার,ভাড়া করা পিক-আপ ও অটো রিকশায় ঘুড়তে এসেছেন তারা। বিভিন্ন শ্রেণি পেশার মানুষের উপস্থিতিতে সেখানে সৃষ্টি হয়েছে এক মিলন মেলা। অনেকেই নিজস্ব ক্যামেরা কিংবা মুঠোফোনে বিভিন্ন রঙে-ঢঙে সেলফি ও ছবি তুলছেন। এছাড়াও অনেক যুবক যুবতিকে  টিক টক ও লাইকি ভিডিও বানিয়ে আনন্দ উপভোগ করতেও দেখা গেছে।
ঘুরতে আসা দর্শনার্থীদের জন্য ভাসমান বিভিন্ন খাদ্যের দোকান দেখতে পাওয়া গেছে। এতে বিভিন্ন বেকারি খাদ্য সামগ্রী, বাদাম, চটপটি, ফুসকা ও কোমল পানিও সহ নানা পণ্যের বিক্রি ছিলো চোখে পড়ার মতো। অনেকেই নদীর চরে হেটে সময় কাটাচ্ছেন। ইঞ্জিন চালিত নৌকায় কিংবা ডিঙ্গি নৌকায় চড়ে বেড়াচ্ছেন কেউ কেউ। নদীর তীরে মনোরম পরিবেশে সময় কাটাতে ব্যাস্ত দর্শনার্থীরা।
পরিবার-পরিজন নিয়ে ঘুরতে এসেছেন জামান-নিলুফা দম্পতি। তারা বলেন, ঈদের দিনে ব‍্যস্ত ছিলাম। তাই আজ ঈদের দ্বিতীয় দিনে বাচ্চাদের নিয়ে ঘুরতে এসেছি দুধকুমার নদের তীরে। এখানকার নির্মল হাওয়া আর নিরিবিলি পরিবেশ খুবই ভালো লাগছে।
সোহান, তানভীর, হাবির, শিমুলসহ তারা আরো কয়েকজন বন্ধু মিলে ঘুড়তে এসেছে সোনাহাট রেল সেতুর পাড়ে। তারা জানায় জায়গাটা খুবই ভালো। নদীর পাড়ের বিকেলটা খুবই ভালো লাগছে।
স্হানীয় বাসিন্দারা জানান, এখানে প্রতি ঈদের সময় দূরদূরান্ত থেকে শতশত মানুষ আসে। এটা আমাদের জন্য খুব ভালো লাগার একটি বিষয়। সরকারি বা বেসরকারী ভাবে দুধকুমার নদের পাড়ে একটি স্থায়ী পার্ক তৈরির দাবি জানান তারা।
আপলোডকারীর তথ্য

Banglar Alo News

hello
জনপ্রিয় সংবাদ

চলতি মৌসুমে ভুট্টার বাম্পার ফলনের আশা করছেন রায়গঞ্জের কৃষকেরা

ভূরুঙ্গামারীতে ঈদ আনন্দে সোনাহাট সেতু পাড়ে দর্শনার্থীদের উপচে পড়া ভীড় 

আপডেট সময় ০৮:০৪:২৬ অপরাহ্ন, বুধবার, ৪ মে ২০২২
ভূরুঙ্গামারী (কুড়িগ্রাম) প্রতিনিধিঃ
কুড়িগ্রামের ভূরুঙ্গামারীতে ঈদ আনন্দে ঈদের দ্বিতীয় দিনেও দর্শনার্থীদের উপচে পড়া ভীরে মুখরিত হয়ে ওঠেছে দুধকুমার নদের তীর। দর্শনার্থীদের পদচারণায় মুখরিত হয়ে উঠেছে সোনাহাট রেল সেতুর দুই পাড়। সোনাহাট স্থলবন্দর ও জিরো পয়েন্টেও বিনোদন প্রেমীদের উপস্থিত ছিলো চোখে পড়ার মতো। গোটা উপজেলার কোথাও বিনোদনের জন‍্য কোন পার্ক না থাকায় পরিবার-পরিজন নিয়ে ঘুরতে ও ঈদ উদযাপন করতে এখানে এসেছেন শত শত লোক। দুধকুমার নদের জেগে ওঠা চরে  মনোরম দৃশ্য দেখে আনন্দঘন সময় কাটিয়েছেন বিনোদন প্রেমীরা। শতবর্ষী সোনাহাট রেল সেতুর পাশেই নির্মিত হচ্ছে নতুন একটি গার্ডার ব্রীজ। সেখানকার নির্মিতব‍্য নানা সরঞ্জামাদি দেখতেও ভীড় জমিয়েছেন দর্শনার্থীরা।
সরেজমিনে গিয়ে দেখা যায়, ঈদের দিন ও ঈদের পর দিনও শত শত মানুষ পরিবার-পরিজন, বন্ধু-বান্ধব নিয়ে সকাল থেকে রাত পর্যন্ত সময় কাটাচ্ছেন। উপজেলার বাইরেও দুরদুরান্ত থেকে নিজস্ব মোটরসাইকেল, প্রাইভেট কার,ভাড়া করা পিক-আপ ও অটো রিকশায় ঘুড়তে এসেছেন তারা। বিভিন্ন শ্রেণি পেশার মানুষের উপস্থিতিতে সেখানে সৃষ্টি হয়েছে এক মিলন মেলা। অনেকেই নিজস্ব ক্যামেরা কিংবা মুঠোফোনে বিভিন্ন রঙে-ঢঙে সেলফি ও ছবি তুলছেন। এছাড়াও অনেক যুবক যুবতিকে  টিক টক ও লাইকি ভিডিও বানিয়ে আনন্দ উপভোগ করতেও দেখা গেছে।
ঘুরতে আসা দর্শনার্থীদের জন্য ভাসমান বিভিন্ন খাদ্যের দোকান দেখতে পাওয়া গেছে। এতে বিভিন্ন বেকারি খাদ্য সামগ্রী, বাদাম, চটপটি, ফুসকা ও কোমল পানিও সহ নানা পণ্যের বিক্রি ছিলো চোখে পড়ার মতো। অনেকেই নদীর চরে হেটে সময় কাটাচ্ছেন। ইঞ্জিন চালিত নৌকায় কিংবা ডিঙ্গি নৌকায় চড়ে বেড়াচ্ছেন কেউ কেউ। নদীর তীরে মনোরম পরিবেশে সময় কাটাতে ব্যাস্ত দর্শনার্থীরা।
পরিবার-পরিজন নিয়ে ঘুরতে এসেছেন জামান-নিলুফা দম্পতি। তারা বলেন, ঈদের দিনে ব‍্যস্ত ছিলাম। তাই আজ ঈদের দ্বিতীয় দিনে বাচ্চাদের নিয়ে ঘুরতে এসেছি দুধকুমার নদের তীরে। এখানকার নির্মল হাওয়া আর নিরিবিলি পরিবেশ খুবই ভালো লাগছে।
সোহান, তানভীর, হাবির, শিমুলসহ তারা আরো কয়েকজন বন্ধু মিলে ঘুড়তে এসেছে সোনাহাট রেল সেতুর পাড়ে। তারা জানায় জায়গাটা খুবই ভালো। নদীর পাড়ের বিকেলটা খুবই ভালো লাগছে।
স্হানীয় বাসিন্দারা জানান, এখানে প্রতি ঈদের সময় দূরদূরান্ত থেকে শতশত মানুষ আসে। এটা আমাদের জন্য খুব ভালো লাগার একটি বিষয়। সরকারি বা বেসরকারী ভাবে দুধকুমার নদের পাড়ে একটি স্থায়ী পার্ক তৈরির দাবি জানান তারা।