বাংলাদেশ ০৫:৫১ অপরাহ্ন, রবিবার, ২৫ ফেব্রুয়ারী ২০২৪, ১৩ ফাল্গুন ১৪৩০ বঙ্গাব্দ
নোটিশ :

সাংবাদিক নিয়োগ চলছে,, সাংবাদিক নিয়োগ চলছে,,০১৯৯৯-৯৫৩৯৭০, ০১৭১২-৪৪৬৩০৬,০১৭১১-০০৬২১৪ সম্পাদক

     
ব্রেকিং নিউজ ::
‌সি‌লে‌টে কবি আবুল বশর আনসারী’র লেখা কবিতা পবিত্র সিলেট ভূমি ফলক উন্মোচন ও জীবনী নি‌য়ে আলোচনা। তিন পদে লোক নিচ্ছে হুয়াওয়ে বাংলাদেশ স্কুলছাত্রীকে গণধর্ষণ ও হত্যার পলাতক আসামী গ্রেফতার।  গার্মেন্টস কর্মীকে পূর্বপরিকল্পিতভাবে জোরপূর্বক গণধর্ষণের মূল পরিকল্পনাকারী সহ ০৫ জন ধর্ষককে গ্রেফতার করেছে র‌্যাব। হেরোইনসহ ০১ জন মাদক কারবারী কে গ্রেফতার করেছে র‌্যাব।  শিশুদের রংতুলিতে ভাষা আন্দোলনের প্রতিচ্ছবি: জবি উপাচার্য রাবিতে ঢাকা জেলা সমিতির নেতৃত্বে আনাস-শিহাব তালতলীর খালাকে হত্যার পর কানের রিং বিক্রি করে খুনিকে টাকা দেয় ভাগ্নে কলাপাড়ায় এক সন্তানের জননীকে ধর্ষন চেষ্টার অভিযোগ নতুন কারিকুলাম বাস্তবায়নের চ্যালেঞ্জ মোকাবেলায় সুপারিশ রাঙ্গাবালীতে মৎস্য ব্যবসায়ী রাসাদ হত্যাকারীর ফাঁসির দাবিতে মানববন্ধন। পিঠা উৎসব ও বসন্ত বরনকে কেন্দ্র করে শিক্ষক শিক্ষার্থীদের মিলন মেলায় পরিনত  নলছিটিতে শ্রমিকলীগ কর্মীকে কুপিয়ে হত্যা  নাটোরের বড়াইগ্রামে বর্ণিল আয়োজনে পিঠা উৎসব ও বসন্ত বরণ। পঞ্চগড়ের বোদায় ট্যাপেন্ডাডল ট্যাবলেটসহ ২ জন মাদক ব্যবসায়ী গ্রেফতার।

সোনাগাজীতে তিন ফসলি কৃষি জমি অধিগ্রহণের প্রতিবাদে মানববন্ধন ও স্মারকলিপি প্রদান

  • নিজস্ব সংবাদ :
  • আপডেট সময় ০৯:০২:২৮ পূর্বাহ্ন, বৃহস্পতিবার, ৩১ মার্চ ২০২২
  • ১৬৭৭ বার পড়া হয়েছে

সোনাগাজীতে তিন ফসলি কৃষি জমি অধিগ্রহণের প্রতিবাদে মানববন্ধন ও স্মারকলিপি প্রদান

সোনাগাজী (ফেনী) প্রতিনিধি
সোনাগাজীতে তিন ফসলি কৃষি ভূমি অধিগ্রহণের প্রতিবাদে মানববন্ধন ও জেলা প্রশাসককে স্মারক লিপি দিয়েছে এলাকাবাসী। গত বুধবার বিকালে উপজেলার উপকূলীয় অঞ্চল পূর্ব বড়ধলী মৌজা ও দক্ষিণ চর চান্দিয়া মৌজায় ‘১০০ মেগাওয়াট গ্রীড টাইড সোলার পার্ক’ প্রকল্প বাতিলের দাবিতে মানব বন্ধন শেষে ফেনী জেলা প্রশাসককে স্মারক লিপি প্রদান করেছেন এলাকাবাসী।
দক্ষিণ চর চান্দিয়া গ্রামের আবুল হোসেন জানায়, সম্প্রতি ‘১০০মেগাওয়াট গ্রীড টাইড সোলার প্রকল্প’ এ (এলএ কেইস নং ৭/২০১৫-১৬) অধিগ্রহনকৃত ৩৪১ একর ভূমিতে তাদের বশত বাড়ি ও তিন ফসলি কৃষি ভূমিসহ অধিগ্রহণ করা শুরু হয়েছে। এই এলাকার মানুষ যুগযুগ ধরে উপকূলীয় এ অঞ্চলটিতে প্রাকৃতিক বিরূপ পরিবেশ সত্বেও ঝড় তুফান, বন্যা জলোচ্ছ্বাস উপেক্ষা করে বসবাস করে আসছে।
বিগত বছরগুলোতে টর্নেডো, সুনামিসহ বিভিন্ন প্রাকৃতিক দূর্যোগে বহু স্বজনকে হারিয়েও সব দুঃখ কষ্ট ভূলে ভালোবেসে বসবাস করছে। কৃষি কাজ, মৎস্য আহরণ,পশুপালন ইত্যাদির মাধ্যমে জীবিকা নির্বাহ করে। সৎ উপায়ে আয় রোজগার করে খেটে খাওয়া মানুষ। অধিগ্রহন কৃত এলাকায় রয়েছে হাজার হাজার গরু মহিষের চারণ ভূমি। ইতিপূর্বে বসত বাড়ি ও তিন ফসলি কৃষি ভূমি বাদ দিয়েই অধিগ্রহণ করা হলেও বর্তমানে তারা বশত বাড়ি ও তিন ফসলি কৃষি ভূমি ঘেরাও করে পিলার বসিয়ে অধিগ্রহনের চেষ্ঠা করছে।
এলাকাবাসী জানায়, এ ভূমি অধিগ্রহণের ফলে নদী উপকূলীয় জনপদের কয়েক হাজার কৃষক,জেলে ও প্রাণিসম্পদের সাথে সম্পৃক্ত খামার মালিক, শ্রমিক কর্মহীন হয়ে পড়বে। প্রধানমন্ত্রী ঘোষণা দিয়েছিলেন, কোন বশত বাড়ি ও ফসলি কৃষি ভূমি অধিগ্রহণ করা হবেনা।
জেলা প্রশাসক আবু সেলিম মাহমুদ উল হাসান ‘র মাধ্যমে প্রধানমন্ত্রীর হস্তক্ষেপ কামনা করেন । সরেজমিনে যাচাই-বাছাই করে বশত বাড়ি ও তিন ফসলি কৃষি ভূমি রক্ষায় প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা গ্রহণ করার জন্য আবেদন জানায় এলাকাবাসী।
আপলোডকারীর তথ্য

Banglar Alo News

hello
জনপ্রিয় সংবাদ

‌সি‌লে‌টে কবি আবুল বশর আনসারী’র লেখা কবিতা পবিত্র সিলেট ভূমি ফলক উন্মোচন ও জীবনী নি‌য়ে আলোচনা।

সোনাগাজীতে তিন ফসলি কৃষি জমি অধিগ্রহণের প্রতিবাদে মানববন্ধন ও স্মারকলিপি প্রদান

আপডেট সময় ০৯:০২:২৮ পূর্বাহ্ন, বৃহস্পতিবার, ৩১ মার্চ ২০২২
সোনাগাজী (ফেনী) প্রতিনিধি
সোনাগাজীতে তিন ফসলি কৃষি ভূমি অধিগ্রহণের প্রতিবাদে মানববন্ধন ও জেলা প্রশাসককে স্মারক লিপি দিয়েছে এলাকাবাসী। গত বুধবার বিকালে উপজেলার উপকূলীয় অঞ্চল পূর্ব বড়ধলী মৌজা ও দক্ষিণ চর চান্দিয়া মৌজায় ‘১০০ মেগাওয়াট গ্রীড টাইড সোলার পার্ক’ প্রকল্প বাতিলের দাবিতে মানব বন্ধন শেষে ফেনী জেলা প্রশাসককে স্মারক লিপি প্রদান করেছেন এলাকাবাসী।
দক্ষিণ চর চান্দিয়া গ্রামের আবুল হোসেন জানায়, সম্প্রতি ‘১০০মেগাওয়াট গ্রীড টাইড সোলার প্রকল্প’ এ (এলএ কেইস নং ৭/২০১৫-১৬) অধিগ্রহনকৃত ৩৪১ একর ভূমিতে তাদের বশত বাড়ি ও তিন ফসলি কৃষি ভূমিসহ অধিগ্রহণ করা শুরু হয়েছে। এই এলাকার মানুষ যুগযুগ ধরে উপকূলীয় এ অঞ্চলটিতে প্রাকৃতিক বিরূপ পরিবেশ সত্বেও ঝড় তুফান, বন্যা জলোচ্ছ্বাস উপেক্ষা করে বসবাস করে আসছে।
বিগত বছরগুলোতে টর্নেডো, সুনামিসহ বিভিন্ন প্রাকৃতিক দূর্যোগে বহু স্বজনকে হারিয়েও সব দুঃখ কষ্ট ভূলে ভালোবেসে বসবাস করছে। কৃষি কাজ, মৎস্য আহরণ,পশুপালন ইত্যাদির মাধ্যমে জীবিকা নির্বাহ করে। সৎ উপায়ে আয় রোজগার করে খেটে খাওয়া মানুষ। অধিগ্রহন কৃত এলাকায় রয়েছে হাজার হাজার গরু মহিষের চারণ ভূমি। ইতিপূর্বে বসত বাড়ি ও তিন ফসলি কৃষি ভূমি বাদ দিয়েই অধিগ্রহণ করা হলেও বর্তমানে তারা বশত বাড়ি ও তিন ফসলি কৃষি ভূমি ঘেরাও করে পিলার বসিয়ে অধিগ্রহনের চেষ্ঠা করছে।
এলাকাবাসী জানায়, এ ভূমি অধিগ্রহণের ফলে নদী উপকূলীয় জনপদের কয়েক হাজার কৃষক,জেলে ও প্রাণিসম্পদের সাথে সম্পৃক্ত খামার মালিক, শ্রমিক কর্মহীন হয়ে পড়বে। প্রধানমন্ত্রী ঘোষণা দিয়েছিলেন, কোন বশত বাড়ি ও ফসলি কৃষি ভূমি অধিগ্রহণ করা হবেনা।
জেলা প্রশাসক আবু সেলিম মাহমুদ উল হাসান ‘র মাধ্যমে প্রধানমন্ত্রীর হস্তক্ষেপ কামনা করেন । সরেজমিনে যাচাই-বাছাই করে বশত বাড়ি ও তিন ফসলি কৃষি ভূমি রক্ষায় প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা গ্রহণ করার জন্য আবেদন জানায় এলাকাবাসী।