ঢাকা ০৩:৩৯ পূর্বাহ্ন, শুক্রবার, ৩১ মার্চ ২০২৩, ১৬ চৈত্র ১৪২৯ বঙ্গাব্দ
নোটিশ :
সাংবাদিক নিয়োগ চলছে,, সাংবাদিক নিয়োগ চলছে,, যোগাযোগ: মোবাইল : 01712-446306, 01999-953970
ব্রেকিং নিউজ ::
জেলা বিএনপিতে পাপলুর স্থগিত, দলীয় কর্মকাণ্ড থেকে বিরত থাকার নির্দেশ লালপুরে কৃষি বীজ, চেক ও সেলাই মেশিন বিতরণ ভেজাল ও মেয়াদোত্তীর্ণ সেমাই এবং অনুমোদনহীন ও নকল বৈদ্যুতিক তার উৎপাদন, মজুদ ও বিক্রি করায় বিভিন্ন প্রতিষ্ঠানকে র‌্যাবের ভ্রাম্যমাণ আদালতে জরিমানা অভিনব কায়দায় ০২ টি প্রাইভেটকারের গ্যাস সিলিন্ডারের মধ্যে ইয়াবা পাচারকালে ইয়াবাসহ ০৬ জনকে গ্রেফতার করেছে র‌্যাব-১ কুমিল্লায় র‌্যাব সদস্যের সহযোগিতায় প্রাণ বাঁচলো ছোট শিশু ইসরাতের র‌্যাব-১ এর ভ্রাম্যমাণ অভিযানে ০২ টি খাবার তৈরী প্রতিষ্ঠান এবং ০২ টি আয়রন রড, শীট বিক্রয় প্রতিষ্ঠান’কে জরিমানা ভান্ডারিয়ায় ইসলামী ব্যাংকের ইফতার মাহফিল অনুষ্ঠিত রাজশাহীতে এসআইয়ের ওপর মাদক কারবারির হামলা পুর্বের কমিটি বিলুপ্ত করে ৩১ সদস্য বিশিষ্ট পীরগঞ্জ উপজেলা বিএনপি’র আহবায়ক কমিটি গঠিত হয়েছে যশোরে দুটি উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে বৈকালিক চেম্বার উদ্বোধন বঙ্গবন্ধু স্মৃতি যাদুঘরে ডিফেন্স ফাইন্যান্স ডিপার্টমেন্টের কন্ট্রোলারের শ্রদ্ধা মুলাদীতে সিনিয়র আইনজীবি মজিবুর রহমান দুলালের মৃত্যুতে বিভিন্ন জনের শোক॥ মুলাদীতে সর্বজনীন কল্যানে ইসলামী ব্যাংকিং শীর্ষক আলোচনা ও ইফতার মাহফিল॥ প্রথম আলো’র সম্পাদকের উপর মামলার ঘটনায় সিলেট জেলা বিএনপির নিন্দা জামালগঞ্জে ব্যানার ফেস্টুন ছেড়ার হিড়িক থানায় জিডি দায়ের
রুঙ্গামারীতে সরিষার দামে খুশি কৃষক 

রুঙ্গামারীতে সরিষার দামে খুশি কৃষক 

  • নিজস্ব সংবাদ :
  • আপডেট সময় ০৭:১৮:৪০ অপরাহ্ন, রবিবার, ২০ ফেব্রুয়ারী ২০২২
  • ১৬৭৫ বার পড়া হয়েছে

রুঙ্গামারীতে সরিষার দামে খুশি কৃষক 

মহান স্বাধীনতা দিবস উপলক্ষে ভিডিও প্রতিযোগিতা: বিস্তারিত ফেইসবুক পেইজে

মাহবুব হোসেন, ভূরুঙ্গামারী (কুড়িগ্রাম) প্রতিনিধিঃ

কুড়িগ্রামের ভূরুঙ্গামারীতে চলতি মৌসুমে  সরিষার বাম্পার ফলন আর ভালো দামে কৃষকের মুখে ফুটে ওঠেছে স্বপ্ন পুরনের হাসি। এবার ভোজ্য তেলের দাম বাড়ার কারণে কৃষকদের সরিষা চাষে আগ্রহ ছিল বেশি। এছাড়াও সারা বছর ভোজ্যতেলের চাহিদা মেটাতেও সরিষা চাষ করছেন অনেক কৃষক। দাম ভালো পাওয়ায় খুশি কৃষকরা।

উপজেলা কৃষি অফিস সুত্রে জানাগেছে, চলতি মৌসুমে উপজেলার ২ হাজার ৪৫ হেক্টর  জমিতে সরিষা আবাদের লক্ষ্য মাত্রা নির্ধারণ করা হয়েছিল। অর্জিত হয়েছে ২ হাজার ২০ হেক্টর। এর মধ‍্যে উচ্চ ফলনশীল বীনা-৪, বারী- ৯, বারী-১৪, বারী-১৭, বারী-১৮ ও দেশী জাতের সরিষা চাষ করেছেন কৃষক। উপজেলার বিভিন্ন হাট বাজার ঘুড়ে দেখা গেছে, প্রতি মণ সরিষা প্রকার ভেদে ২ হাজার ৪০০ টাকা থেকে ২ হাজার ৬০০ টাকায় বিক্রি  হচ্ছে।

একাধিক কৃষকের সাথে কথা বলে জানা গেছে সরিষা চাষ খুবিই লাভজনক একটা আবাদ। অতি অল্প সময়ে, অল্প পুজিতে কৃষকরা লাভবান হন তাই অধিকাংশ কৃষক এখন সরিষা চাষের দিকে ঝুকছেন। দুটি ফসলের মাঝে কৃষকরা সরিষা চাষের ফলনকে বোনাস হিসেবে দেখছেন। আমন ধান কাটার পর জমিতে সরিষা লাগাতে হয়। যা মাত্র ৬০ থেকে ৭০ দিনের মধ্যে ফসল কৃষক ঘরে তুলতে পারেন। এক বিঘা (৩২ শতাংশ) জমিতে সরিষা আবাদ করতে খরচ হয় চার থেকে সাড়ে চার হাজার টাকা। যদি সঠিক ভাবে পরিচর্চা করা যায় তাহলে প্রতি বিঘায় ফলন হয় ৫ থেকে ৬ মণ সরিষা।

 

উপজেলার পাইকেরছড়া ইউনিয়নের ছিট পাইকেরছড়া গ্রামের কৃষক জব্বার আলী জানান, আমন ধান কাটার পর তিন  বিঘা জমিতে সরিষা চাষ করেছি। ফলনও বেশ ভাল হয়েছে। প্রতি মণ সরিষা ২ হাজার ৫০০ টাকায় বিক্রি করেছি।এতে বোরো আবাদের তেল ও সার কেনার টাকা জোগাড় হয়ে যাবে। ভূরুঙ্গামারী সদর ইউনিয়নের নলেয়া গ্রামের কৃষক আবু বক্কর জানান, পরিবারের খাবার তেলের চাহিদা মেটাতে তিনি আড়াই বিঘা জমিতে সরিষার আবাদ করেছেন। ফলন খুব ভালো হয়েছে। নিজের চাহিদা মিটিয়ে অতিরিক্ত সরিষা বিক্রি করেছেন। ভালো দাম পেয়ে তিনি খুশি।

উপজেলা কৃষি কর্মকর্তা আসাদুজ্জামান বলেন,  উপজেলায় এবার সরিষার বাম্পার ফলন হয়েছে । স্বল্প সময়ের মধ্যে কৃষককে অধিক ফলন পেতে নানা ভাবে প্রশিক্ষন দেওয়া হয়েছে। এছাড়াও কৃষি প্রনোদনায় সার ও বীজ সঠিক সময়ে কৃষকদের কাছে পৌছে দেয়া হয়েছে। ফলে  কৃষকের কোন সমস্যার সৃষ্টি হয়নি। উৎপাদন ও দামে কৃষকদের সন্তুষ্টি দেখে তিনিও খুশি হয়েছেন।

জনপ্রিয় সংবাদ

জেলা বিএনপিতে পাপলুর স্থগিত, দলীয় কর্মকাণ্ড থেকে বিরত থাকার নির্দেশ

রুঙ্গামারীতে সরিষার দামে খুশি কৃষক 

রুঙ্গামারীতে সরিষার দামে খুশি কৃষক 

আপডেট সময় ০৭:১৮:৪০ অপরাহ্ন, রবিবার, ২০ ফেব্রুয়ারী ২০২২

মাহবুব হোসেন, ভূরুঙ্গামারী (কুড়িগ্রাম) প্রতিনিধিঃ

কুড়িগ্রামের ভূরুঙ্গামারীতে চলতি মৌসুমে  সরিষার বাম্পার ফলন আর ভালো দামে কৃষকের মুখে ফুটে ওঠেছে স্বপ্ন পুরনের হাসি। এবার ভোজ্য তেলের দাম বাড়ার কারণে কৃষকদের সরিষা চাষে আগ্রহ ছিল বেশি। এছাড়াও সারা বছর ভোজ্যতেলের চাহিদা মেটাতেও সরিষা চাষ করছেন অনেক কৃষক। দাম ভালো পাওয়ায় খুশি কৃষকরা।

উপজেলা কৃষি অফিস সুত্রে জানাগেছে, চলতি মৌসুমে উপজেলার ২ হাজার ৪৫ হেক্টর  জমিতে সরিষা আবাদের লক্ষ্য মাত্রা নির্ধারণ করা হয়েছিল। অর্জিত হয়েছে ২ হাজার ২০ হেক্টর। এর মধ‍্যে উচ্চ ফলনশীল বীনা-৪, বারী- ৯, বারী-১৪, বারী-১৭, বারী-১৮ ও দেশী জাতের সরিষা চাষ করেছেন কৃষক। উপজেলার বিভিন্ন হাট বাজার ঘুড়ে দেখা গেছে, প্রতি মণ সরিষা প্রকার ভেদে ২ হাজার ৪০০ টাকা থেকে ২ হাজার ৬০০ টাকায় বিক্রি  হচ্ছে।

একাধিক কৃষকের সাথে কথা বলে জানা গেছে সরিষা চাষ খুবিই লাভজনক একটা আবাদ। অতি অল্প সময়ে, অল্প পুজিতে কৃষকরা লাভবান হন তাই অধিকাংশ কৃষক এখন সরিষা চাষের দিকে ঝুকছেন। দুটি ফসলের মাঝে কৃষকরা সরিষা চাষের ফলনকে বোনাস হিসেবে দেখছেন। আমন ধান কাটার পর জমিতে সরিষা লাগাতে হয়। যা মাত্র ৬০ থেকে ৭০ দিনের মধ্যে ফসল কৃষক ঘরে তুলতে পারেন। এক বিঘা (৩২ শতাংশ) জমিতে সরিষা আবাদ করতে খরচ হয় চার থেকে সাড়ে চার হাজার টাকা। যদি সঠিক ভাবে পরিচর্চা করা যায় তাহলে প্রতি বিঘায় ফলন হয় ৫ থেকে ৬ মণ সরিষা।

 

উপজেলার পাইকেরছড়া ইউনিয়নের ছিট পাইকেরছড়া গ্রামের কৃষক জব্বার আলী জানান, আমন ধান কাটার পর তিন  বিঘা জমিতে সরিষা চাষ করেছি। ফলনও বেশ ভাল হয়েছে। প্রতি মণ সরিষা ২ হাজার ৫০০ টাকায় বিক্রি করেছি।এতে বোরো আবাদের তেল ও সার কেনার টাকা জোগাড় হয়ে যাবে। ভূরুঙ্গামারী সদর ইউনিয়নের নলেয়া গ্রামের কৃষক আবু বক্কর জানান, পরিবারের খাবার তেলের চাহিদা মেটাতে তিনি আড়াই বিঘা জমিতে সরিষার আবাদ করেছেন। ফলন খুব ভালো হয়েছে। নিজের চাহিদা মিটিয়ে অতিরিক্ত সরিষা বিক্রি করেছেন। ভালো দাম পেয়ে তিনি খুশি।

উপজেলা কৃষি কর্মকর্তা আসাদুজ্জামান বলেন,  উপজেলায় এবার সরিষার বাম্পার ফলন হয়েছে । স্বল্প সময়ের মধ্যে কৃষককে অধিক ফলন পেতে নানা ভাবে প্রশিক্ষন দেওয়া হয়েছে। এছাড়াও কৃষি প্রনোদনায় সার ও বীজ সঠিক সময়ে কৃষকদের কাছে পৌছে দেয়া হয়েছে। ফলে  কৃষকের কোন সমস্যার সৃষ্টি হয়নি। উৎপাদন ও দামে কৃষকদের সন্তুষ্টি দেখে তিনিও খুশি হয়েছেন।