বাংলাদেশ ০৫:০৫ পূর্বাহ্ন, সোমবার, ২২ জুলাই ২০২৪, ৬ শ্রাবণ ১৪৩১ বঙ্গাব্দ
নোটিশ :

সাংবাদিক নিয়োগ চলছে,, সাংবাদিক নিয়োগ চলছে,,০১৯৯৯-৯৫৩৯৭০, ০১৭১২-৪৪৬৩০৬,০১৭১১-০০৬২১৪ সম্পাদক

     
ব্রেকিং নিউজ ::
মুন্সীগঞ্জ সদর ইউএনওর চরডুমুরিয়া সরকারী প্রাথমিক বিদ্যালয় পরিদর্শন সন্ধ্যার মধ্যে উপাচার্য, শিক্ষক, কর্মকর্তা-কর্মচারীদের বাসভবন ছাড়ার আল্টিমেটাম কুবি শিক্ষার্থীদের রাবিতে জড়ো হওয়া আন্দোলনকারীদের পুলিশ-বিজিবির ধাওয়া মেহেন্দিগঞ্জে অজ্ঞাতনামা নারীর অর্ধগলিত লাশ উদ্ধার। মুন্সীগঞ্জে গায়েবানা জানাযা থেকে ঈমাম ও বিএনপি নেতাকে ধরে নিয়ে গেলো পুলিশ কোটা আন্দোলনের পক্ষে সংহতি জানিয়ে ফেনী ইউনিভার্সিটির বর্তমান ও প্রাক্তন শিক্ষার্থীদের বিবৃতি চলমান পরিস্থিতিতে রাবি ক্যাম্পাসে ছাত্র রাজনীতি আপাতত স্থগিত: উপাচার্য বিদেশের পাঠানো টাকা চাইতে গিয়ে বিপাকে প্রবাসী স্বামী রাজশাহীতে ধর্মীয় ভাবগাম্ভীর্যের মধ্য দিয়ে পবিত্র আশুরা পালিত চট্রগ্রামের কোটা সংস্কার আন্দোলনে নিহত ওয়াসিমের জানাজায় মানুষের ঢল পিরোজপুরের মঠবাড়িয়া পৌরসভার রাস্তায় সমবায় সমিতি ভবনের ট্যাংকির ময়লা: জনদুর্ভোগ মুন্সীগঞ্জে কোটা সংস্কার আন্দোলনকারীদের উপর হামলা, আহত ৫ হরিপুরে, প্রগতি লাইফ ইন্স্যুরেন্স লিমিটেড এর পক্ষ থেকে কর্মী মিটিং ও গ্রাহক সমাবেশ অনুষ্ঠিত। গৌরীপুরে উদীচী কার্য়ালয়ে হামলা ও ভাংচুর স্ত্রীর যৌতুক মামলায় প্রাথমিক বিদ্যালয়ের শিক্ষক কারাগারে

আন্তঃজেলা চোর চক্রের ৩সদস্য গ্রেফতার

  • নিজস্ব সংবাদ :
  • আপডেট সময় ০৯:২০:১৪ অপরাহ্ন, বুধবার, ৯ মার্চ ২০২২
  • ১৭০৯ বার পড়া হয়েছে

আন্তঃজেলা চোর চক্রের ৩সদস্য গ্রেফতার

মোঃ সবুজ সরকার সৌরভ, ঘাটাইল (টাঙ্গাইল) প্রতিনিধিঃ
গরু চুরির কাজে ব্যবহৃত একটি পিকআপ গাড়ি এবং চুরি যাওয়া ৬টি গরুর ২টি ও ৪টি চোরাই গরু বিক্রির এক লাখ আশি হাজার টাকা উদ্ধারসহ আন্তঃজেলা গরুচোর চক্রের তিন সদস্যকে গ্রেফতার করেছে টাঙ্গাইলের ঘাটাইল থানা পুলিশ। দেশের বিভিন্ন স্থানে অভিযান চালিয়ে তাদেরকে আটক করা হয় বলে ঘাটাইল ডট কমকে আজ বুধবার (৯ মার্চ) ঘাটাইল থানা পুলিশ জানিয়েছে।
আটক হওয়া চোরচক্রের তিন সদস্য হচ্ছেন, বগুড়া জেলার ধুনট উপজেলার বেড়েরবাড়ি গ্রামের এছরাফ আলীর ছেলে আব্দুল খালেক (৪৭), টাঙ্গাইলের বাসাইল উপজেলার পিচুরি পূর্বপাড়া গ্রামের কাদের মিয়ার ছেলে মোশারফ হোসেন (৩৩) এবং দেলদুয়ার উপজেলার ব্রাহ্মণখোলা গ্রামের জাহাঙ্গীর আলমের ছেলে শাহ আলম (৩০)।
জানা যায়, গত ২৮ ফেব্রুয়ারি ঘাটাইলের কোলাহা গ্রাম থেকে শাহিন মণ্ডলের ৬টি গরু চুরি হলে তিনি থানায় একটি মামলা দায়ের করেন। পরে ঘাটাইল থানা পুলিশ মামলার রহস্য উদ্ঘাটন ও চুরি যাওয়া গরুগুলো উদ্ধারে জরুরি ব্যবস্থা গ্রহণ করে।
ঘাটাইল থানা সুত্র জানায়, শাহিন মণ্ডলের মামলা পরবর্তীতে ঘাটাইল থানা পুলিশ অভিযান চালিয়ে বগুড়া জেলার ধুনট উপজেলার বেড়েরবাড়ি গ্রামের এছরাফ আলীর ছেলে গরুচোর আব্দুল খালেককে (৪৭) আটক করে। সে সময় চুরি যাওয়া দুইটি গরু উদ্ধার করে পুলিশ। গ্রেফতারকৃত গরুচোর আব্দুল খালেক টাঙ্গাইলসহ পার্শ্ববর্তী জেলায় গরু চুরি করে বলে জিজ্ঞাসাবাদে জানায়।
পরে আব্দুল খালেকের দেয়া তথ্য মতে ঘাটাইল থানা পুলিশ ও ডিবি (উত্তর) টাঙ্গাইল এর একটি বিশেষ টিম নিরলস প্রচেষ্টার মাধ্যমে আরও গোপন সূত্র ও তথ্যপ্রযুক্তির সহায়তায় টাঙ্গাইল জেলার বাসাইল উপজেলার বাতুলিসাদী গ্রামে গত ৭ মার্চ রাতে অভিযান পরিচালনা করে। সে সময় চুরির কাজে ব্যবহৃত একটি পিকআপ গাড়ি ও ত্রিপল উদ্ধার করা হয়।
পরবর্তীতে ঢাকা জেলার আশুলিয়া এলাকার নিশ্চিন্তপুর গ্রামে মফিজ উদ্দিনের বাসার সামনে গত ৮ মার্চ ভোরে অভিযান পরিচালনা করে চোরচক্রের সদস্য মোশারফ হোসেন ও শাহ আলমকে গ্রেফতার করে পুলিশ। সে সময় আসামীদের কাছ থেকে ৪টি চোরাই গরু বিক্রির বিক্রয়লব্ধ এক লাখ আশি হাজার টাকা এবং চুরির কাজে ব্যবহৃত দুইটি মোবাইল উদ্ধার করা হয় বলে জানায় ঘাটাইল থানা পুলিশ।
গ্রেপ্তারকৃত গরু চোরেরা চুরির সাথে জড়িত থাকার বিষয়ে স্বীকারোক্তিমূলক জবানবন্দি প্রদান করে। পরে তাঁদের টাঙ্গাইল জেলহাজতে প্রেরণ করা হয়।
ঘাটাইল থানার অফিসার ইনচার্জ আজহারুল ইসলাম সরকার (পিপিএম) বলেন, ঘাটাইলের বিভিন্ন এলাকায় গরু চোরদের উপদ্রপ বেড়েছে। এই চোরেরা সংঘবদ্ধভাবে চুরি করে বলে চোরদের চক্রের সন্ধান পেতে এবং তাঁদের আটক করে এই চক্র ধ্বংস করতে টাঙ্গাইল ডিবি পুলিশের সহায়তায় জরুরি ব্যবস্থা গ্রহণ করে ঘাটাইল থানা পুলিশ। এর প্রেক্ষিতে বগুড়া ও আশুলিয়ায় অভিযান পরিচালনা করে চোরচক্রের তিন সদস্যকে আটক করে টাঙ্গাইল জেলহাজতে প্রেরণ করা হয়েছে। সে সময় চুরি কাজে ব্যবহৃত একটি পিকআপ, দুইটি চোরাই গরু এবং চুরি করা গরু বিক্রির এক লাখ আশি হাজার উদ্ধার করা হয়েছে।
জনপ্রিয় সংবাদ

মুন্সীগঞ্জ সদর ইউএনওর চরডুমুরিয়া সরকারী প্রাথমিক বিদ্যালয় পরিদর্শন

আন্তঃজেলা চোর চক্রের ৩সদস্য গ্রেফতার

আপডেট সময় ০৯:২০:১৪ অপরাহ্ন, বুধবার, ৯ মার্চ ২০২২
মোঃ সবুজ সরকার সৌরভ, ঘাটাইল (টাঙ্গাইল) প্রতিনিধিঃ
গরু চুরির কাজে ব্যবহৃত একটি পিকআপ গাড়ি এবং চুরি যাওয়া ৬টি গরুর ২টি ও ৪টি চোরাই গরু বিক্রির এক লাখ আশি হাজার টাকা উদ্ধারসহ আন্তঃজেলা গরুচোর চক্রের তিন সদস্যকে গ্রেফতার করেছে টাঙ্গাইলের ঘাটাইল থানা পুলিশ। দেশের বিভিন্ন স্থানে অভিযান চালিয়ে তাদেরকে আটক করা হয় বলে ঘাটাইল ডট কমকে আজ বুধবার (৯ মার্চ) ঘাটাইল থানা পুলিশ জানিয়েছে।
আটক হওয়া চোরচক্রের তিন সদস্য হচ্ছেন, বগুড়া জেলার ধুনট উপজেলার বেড়েরবাড়ি গ্রামের এছরাফ আলীর ছেলে আব্দুল খালেক (৪৭), টাঙ্গাইলের বাসাইল উপজেলার পিচুরি পূর্বপাড়া গ্রামের কাদের মিয়ার ছেলে মোশারফ হোসেন (৩৩) এবং দেলদুয়ার উপজেলার ব্রাহ্মণখোলা গ্রামের জাহাঙ্গীর আলমের ছেলে শাহ আলম (৩০)।
জানা যায়, গত ২৮ ফেব্রুয়ারি ঘাটাইলের কোলাহা গ্রাম থেকে শাহিন মণ্ডলের ৬টি গরু চুরি হলে তিনি থানায় একটি মামলা দায়ের করেন। পরে ঘাটাইল থানা পুলিশ মামলার রহস্য উদ্ঘাটন ও চুরি যাওয়া গরুগুলো উদ্ধারে জরুরি ব্যবস্থা গ্রহণ করে।
ঘাটাইল থানা সুত্র জানায়, শাহিন মণ্ডলের মামলা পরবর্তীতে ঘাটাইল থানা পুলিশ অভিযান চালিয়ে বগুড়া জেলার ধুনট উপজেলার বেড়েরবাড়ি গ্রামের এছরাফ আলীর ছেলে গরুচোর আব্দুল খালেককে (৪৭) আটক করে। সে সময় চুরি যাওয়া দুইটি গরু উদ্ধার করে পুলিশ। গ্রেফতারকৃত গরুচোর আব্দুল খালেক টাঙ্গাইলসহ পার্শ্ববর্তী জেলায় গরু চুরি করে বলে জিজ্ঞাসাবাদে জানায়।
পরে আব্দুল খালেকের দেয়া তথ্য মতে ঘাটাইল থানা পুলিশ ও ডিবি (উত্তর) টাঙ্গাইল এর একটি বিশেষ টিম নিরলস প্রচেষ্টার মাধ্যমে আরও গোপন সূত্র ও তথ্যপ্রযুক্তির সহায়তায় টাঙ্গাইল জেলার বাসাইল উপজেলার বাতুলিসাদী গ্রামে গত ৭ মার্চ রাতে অভিযান পরিচালনা করে। সে সময় চুরির কাজে ব্যবহৃত একটি পিকআপ গাড়ি ও ত্রিপল উদ্ধার করা হয়।
পরবর্তীতে ঢাকা জেলার আশুলিয়া এলাকার নিশ্চিন্তপুর গ্রামে মফিজ উদ্দিনের বাসার সামনে গত ৮ মার্চ ভোরে অভিযান পরিচালনা করে চোরচক্রের সদস্য মোশারফ হোসেন ও শাহ আলমকে গ্রেফতার করে পুলিশ। সে সময় আসামীদের কাছ থেকে ৪টি চোরাই গরু বিক্রির বিক্রয়লব্ধ এক লাখ আশি হাজার টাকা এবং চুরির কাজে ব্যবহৃত দুইটি মোবাইল উদ্ধার করা হয় বলে জানায় ঘাটাইল থানা পুলিশ।
গ্রেপ্তারকৃত গরু চোরেরা চুরির সাথে জড়িত থাকার বিষয়ে স্বীকারোক্তিমূলক জবানবন্দি প্রদান করে। পরে তাঁদের টাঙ্গাইল জেলহাজতে প্রেরণ করা হয়।
ঘাটাইল থানার অফিসার ইনচার্জ আজহারুল ইসলাম সরকার (পিপিএম) বলেন, ঘাটাইলের বিভিন্ন এলাকায় গরু চোরদের উপদ্রপ বেড়েছে। এই চোরেরা সংঘবদ্ধভাবে চুরি করে বলে চোরদের চক্রের সন্ধান পেতে এবং তাঁদের আটক করে এই চক্র ধ্বংস করতে টাঙ্গাইল ডিবি পুলিশের সহায়তায় জরুরি ব্যবস্থা গ্রহণ করে ঘাটাইল থানা পুলিশ। এর প্রেক্ষিতে বগুড়া ও আশুলিয়ায় অভিযান পরিচালনা করে চোরচক্রের তিন সদস্যকে আটক করে টাঙ্গাইল জেলহাজতে প্রেরণ করা হয়েছে। সে সময় চুরি কাজে ব্যবহৃত একটি পিকআপ, দুইটি চোরাই গরু এবং চুরি করা গরু বিক্রির এক লাখ আশি হাজার উদ্ধার করা হয়েছে।