বাংলাদেশ ১২:০৭ পূর্বাহ্ন, সোমবার, ১৫ এপ্রিল ২০২৪, ১ বৈশাখ ১৪৩১ বঙ্গাব্দ
নোটিশ :

সাংবাদিক নিয়োগ চলছে,, সাংবাদিক নিয়োগ চলছে,,০১৯৯৯-৯৫৩৯৭০, ০১৭১২-৪৪৬৩০৬,০১৭১১-০০৬২১৪ সম্পাদক

     
ব্রেকিং নিউজ ::
সরাইলে দুই শিশুর পুকুরে গোসল করা নিয়ে সংঘর্ষ, আহত ১৫ বাংলা নববর্ষের মঙ্গল শোভাযাত্রা, পান্তা ভোজন ও মনোজ্ঞ সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠান অনুষ্ঠিত  মাদারীপুরের কালকিনিতে নববর্ষ উপলক্ষে মঙ্গল শোভাযাত্রা মঙ্গল শোভাযাত্রার মাধ্যমে নতুন বছরকে বরণ করলো কুবি মানবতার হাত ফাউন্ডেশনের প্রতিষ্ঠা বার্ষিকী পালিত ও নগদ অর্থ প্রদান  ভান্ডারিয়ায় প্রতিপক্ষের হামলায় স্বামী-স্ত্রী সহ আহত ৫ আওয়ামী লীগ রাজনৈতিক দল নেই দেউলিয়া হয়ে গেছে-মহাসচিব মির্জা ফখরুল পিরোজপুরে দোকানের কর্মচারীকে পিটিয়ে হত্যার অভিযোগ উঠেছে মালিকের বিরুদ্ধে হাটপাঙ্গাসীতে নতুন আঙ্গিকে ঐতিহ্যবাহী গরু-ছাগলের হাট উদ্বোধন মণিরামপুরে নানা আয়োজনে পহেলা বৈশাখ পালিত বর্ণাঢ্য আয়োজনে পহেলা বৈশাখ উদযাপিত কালকিনিতে পহেলা বৈশাখ উপলক্ষে ঘুড়ি উড়ানো প্রতিযোগিতা নাইক্ষ্যংছড়িতে উপজেলা প্রশাসনের উদ্যোগে বাংলা নববর্ষের বর্ণাঢ্য আয়োজন-পাহাড়িদের বৈশাখী শুরু কচুয়ায় নাস্তিক মুরাদের ফাঁসির দাবিতে প্রতিবাদ সমাবেশ অনুষ্ঠিত। রাজশাহী মহানগরীতে বাংলা নববর্ষ উপলক্ষে মঙ্গল শোভাযাত্রা
সরিষাবাড়ীতে জমি অধিগ্রহণ বন্ধের দাবীতে নদীভাঙা মানুষদের মানববন্ধন

সরিষাবাড়ীতে জমি অধিগ্রহণ বন্ধের দাবীতে নদীভাঙা মানুষদের মানববন্ধন

  • নিজস্ব সংবাদ :
  • আপডেট সময় ০৫:৩৮:৩৬ অপরাহ্ন, শনিবার, ১৯ ফেব্রুয়ারী ২০২২
  • ১৭০৮ বার পড়া হয়েছে

সরিষাবাড়ীতে জমি অধিগ্রহণ বন্ধের দাবীতে নদীভাঙা মানুষদের মানববন্ধন

শাকিল আহম্মেদ সরিষাবাড়ী (জামালপুর) প্রতিনিধি
জামালপুরের সরিষাবাড়ী উপজেলার আওনা ইউনিয়নের দয়ালপুর মৌজায় ভুয়াপুর-তারাকান্দি মহাসড়ক প্রশস্তকরণ প্রকল্পের আওতায় এক্সেল লোড কন্ট্রোল স্টেশন নির্মাণে জমি অধিগ্রহণ বন্ধের দাবীতে মানববন্ধন করেছে এলাকাবাসী।
আজ শনিবার দুপুরে বসতবাড়ি রক্ষা সংগ্রাম কমিটির উদ্যোগ ভুয়াপুর-তারাকান্দি মহাসড়কে ঘন্টাব্যাপী এ মানববন্ধন করা হয়। এতে চেচিয়াবাঁধা, দৌলতপুরসহ কয়েকটি গ্রামের নদীভাঙা ও দিনমজুর শ্রেণির তিন শতাধিক নারী-পুরুষ অংশগ্রহণ করেন।
মানববন্ধনে বক্তারা জানান, এক্সেল লোড কন্ট্রোল স্টেশন নির্মাণের জন্য জমি অধিগ্রহণ করতে জামালপুর ভূমি অধিগ্রহণ শাখা গত ১০ জানুয়ারি এলাকার শতাধিক লোককে নোটিশ দিয়েছে। এলাকার অধিকাংশ মানুষ নদীভাঙা ও খেটে খাওয়া প্রান্তিক শ্রেণির। ইতোপূর্বে বাংলাদেশ রেলওয়ে, যমুনা সারকারখানা এবং সড়ক ও জনপথ আরো তিন-চারবার এ এলাকার জমি অধিগ্রহণ করে। বারবার তারা জমিহারা হয়ে মাত্র ৬০০ মিটার জমির মধ্যে প্রায় ৫০০ পরিবার বস্তির মতো বসবাস করে আসছেন।
তারা অভিযোগ করেন, প্রায় ১০০ জনের নামে নোটিশ দেয়া হলেও এদের ওয়ারিশগণ বিভক্ত হয়ে ৫ শতাধিক পরিবার হয়ে গেছে। এছাড়া দীর্ঘদিন আগের রেকর্ডভূক্ত জমিগুলো কাগজে-কলমে ডোবা-নালা থাকলেও বর্তমানে সেগুলো উঁচু বসতঘর। সরকার অধিগ্রহণের ফলে আগের ডোবা-নালা হিসেবে ভর্তুকির টাকা প্রদান করবে। এতে তারা একদিকে আর্থিকভাবে ক্ষতিগ্রস্ত ও অন্যদিকে বসতভিটা হারিয়ে নিঃস্ব হওয়ার শঙ্কা প্রকাশ করেন।
মানববন্ধনে বক্তব্য রাখেন জামালপুর জেলা প্রেসক্লাবের সাবেক সভাপতি এডভোকেট ইউসুফ আলী, বসতবাড়ি রক্ষা সংগ্রাম কমিটির নেতা মিরন আহম্মেদ, স্থানীয় নুরুল ইসলাম, কমলা বেগম, সাদ্দাম হোসেন, আনিসুর রহমান, কামরুল হাসান, মোকাদ্দেস আলী প্রমুখ।
জনপ্রিয় সংবাদ

সরাইলে দুই শিশুর পুকুরে গোসল করা নিয়ে সংঘর্ষ, আহত ১৫

সরিষাবাড়ীতে জমি অধিগ্রহণ বন্ধের দাবীতে নদীভাঙা মানুষদের মানববন্ধন

সরিষাবাড়ীতে জমি অধিগ্রহণ বন্ধের দাবীতে নদীভাঙা মানুষদের মানববন্ধন

আপডেট সময় ০৫:৩৮:৩৬ অপরাহ্ন, শনিবার, ১৯ ফেব্রুয়ারী ২০২২
শাকিল আহম্মেদ সরিষাবাড়ী (জামালপুর) প্রতিনিধি
জামালপুরের সরিষাবাড়ী উপজেলার আওনা ইউনিয়নের দয়ালপুর মৌজায় ভুয়াপুর-তারাকান্দি মহাসড়ক প্রশস্তকরণ প্রকল্পের আওতায় এক্সেল লোড কন্ট্রোল স্টেশন নির্মাণে জমি অধিগ্রহণ বন্ধের দাবীতে মানববন্ধন করেছে এলাকাবাসী।
আজ শনিবার দুপুরে বসতবাড়ি রক্ষা সংগ্রাম কমিটির উদ্যোগ ভুয়াপুর-তারাকান্দি মহাসড়কে ঘন্টাব্যাপী এ মানববন্ধন করা হয়। এতে চেচিয়াবাঁধা, দৌলতপুরসহ কয়েকটি গ্রামের নদীভাঙা ও দিনমজুর শ্রেণির তিন শতাধিক নারী-পুরুষ অংশগ্রহণ করেন।
মানববন্ধনে বক্তারা জানান, এক্সেল লোড কন্ট্রোল স্টেশন নির্মাণের জন্য জমি অধিগ্রহণ করতে জামালপুর ভূমি অধিগ্রহণ শাখা গত ১০ জানুয়ারি এলাকার শতাধিক লোককে নোটিশ দিয়েছে। এলাকার অধিকাংশ মানুষ নদীভাঙা ও খেটে খাওয়া প্রান্তিক শ্রেণির। ইতোপূর্বে বাংলাদেশ রেলওয়ে, যমুনা সারকারখানা এবং সড়ক ও জনপথ আরো তিন-চারবার এ এলাকার জমি অধিগ্রহণ করে। বারবার তারা জমিহারা হয়ে মাত্র ৬০০ মিটার জমির মধ্যে প্রায় ৫০০ পরিবার বস্তির মতো বসবাস করে আসছেন।
তারা অভিযোগ করেন, প্রায় ১০০ জনের নামে নোটিশ দেয়া হলেও এদের ওয়ারিশগণ বিভক্ত হয়ে ৫ শতাধিক পরিবার হয়ে গেছে। এছাড়া দীর্ঘদিন আগের রেকর্ডভূক্ত জমিগুলো কাগজে-কলমে ডোবা-নালা থাকলেও বর্তমানে সেগুলো উঁচু বসতঘর। সরকার অধিগ্রহণের ফলে আগের ডোবা-নালা হিসেবে ভর্তুকির টাকা প্রদান করবে। এতে তারা একদিকে আর্থিকভাবে ক্ষতিগ্রস্ত ও অন্যদিকে বসতভিটা হারিয়ে নিঃস্ব হওয়ার শঙ্কা প্রকাশ করেন।
মানববন্ধনে বক্তব্য রাখেন জামালপুর জেলা প্রেসক্লাবের সাবেক সভাপতি এডভোকেট ইউসুফ আলী, বসতবাড়ি রক্ষা সংগ্রাম কমিটির নেতা মিরন আহম্মেদ, স্থানীয় নুরুল ইসলাম, কমলা বেগম, সাদ্দাম হোসেন, আনিসুর রহমান, কামরুল হাসান, মোকাদ্দেস আলী প্রমুখ।