বাংলাদেশ ০৬:৪৪ অপরাহ্ন, বুধবার, ১৯ জুন ২০২৪, ৫ আষাঢ় ১৪৩১ বঙ্গাব্দ
নোটিশ :

সাংবাদিক নিয়োগ চলছে,, সাংবাদিক নিয়োগ চলছে,,০১৯৯৯-৯৫৩৯৭০, ০১৭১২-৪৪৬৩০৬,০১৭১১-০০৬২১৪ সম্পাদক

     
ব্রেকিং নিউজ ::
চট্টগ্রামে নির্ধারিত সময়ের আগেই কোরবানির পশুর বর্জ্যমুক্ত তানোর পৌর বাসীকে ঈদুল আজহার শুভেচ্ছা জানিয়েছেন আওয়ামীলীগ নেতা সুজন রাঙ্গাবালীতে ছাত্রলীগের নতুন কমিটি ঘোষণা। রাঙ্গাবালী সরকারি কলেজ ছাত্রলীগের নতুন কমিটি ঘোষণা। বেলাল চেয়ারম্যানের ঈদ শুভেচ্ছা ও ভালোবাসা হত-দরিদ্রের মাঝে রাবি ছাত্রলীগের ইদ উপহার বিতরণ চট্টগ্রামে ঈদুল আজহা উপকরনে কিনতে ব্যস্থ কোরবানিরা প্রধানমন্ত্রীর ঈদ উপহার ভিজিএফ চাল বিতরণে অনিয়ম, তথ্য সংগ্রহ কালে সাংবাদিককে অশ্লীল ভাষায় গালিগালাজ করে জুতা মারার হুমকি। উত্তরবঙ্গের টিকেট কালোবাজারি চক্রের প্রধান দুই সদস্য নুরুজ্জামান ও জাহাঙ্গীর আলমকে গ্রেফতার করেছে র‌্যাব। রংপুরের পীরগঞ্জে ইয়াবা, জুয়ারী,ও ওয়ারেন্টের আসামী সহ ৮জনকে আটক করে পীরগঞ্জ থানা পুলিশ পবিত্র ঈদুল আযহার শুভেচ্ছা জানিয়েছেন জনপ্রিয় নেতা এহসাম হাওলাদার শাহজাদপুরে বিদ্যুৎস্পৃষ্ট হয়ে অটোরিক্সা চালকের মৃত্যু পঞ্চগড়ে নিখোঁজের একদিন পর পকুরে মিললো কলেজ ছাত্রীর লাশ ভান্ডারিয়ায় ঘূর্ণিঝড় রিমালে ক্ষতিগ্রস্থ ৩ হাজার পরিবারকে খাদ্য সহায়তা দিলেন সমাজ সেবক মিঠু মিয়া বিপুল পরিমান ইয়াবাসহ ০১ জন মাদক ব্যবসায়ী গ্রেফতার।

সরিষাবাড়ীতে নদী থেকে মাটি কাটায় হুমকির মুখে ব্রিজ ও বেড়ীবাঁধ

  • নিজস্ব সংবাদ :
  • আপডেট সময় ০৪:৩২:৪০ অপরাহ্ন, সোমবার, ৭ মার্চ ২০২২
  • ১৭৩৯ বার পড়া হয়েছে

সরিষাবাড়ীতে নদী থেকে মাটি কাটায় হুমকির মুখে ব্রিজ ও বেড়ীবাঁধ

শাকিল আহম্মেদ, সরিষাবাড়ী প্রতিনিধি:
জামালপুরের সরিষাবাড়ীতে প্রতিদিন নদী থেকে মাটি কাটায় হুমকির মুখে পড়েছে ব্রিজ, বেড়িবাঁধ ও চলাচলের নবনির্মিত পাকা রাস্তা। উপজেলার পৌর শহরঘেঁষা বলাদিয়ার ও ডোয়াইল ইউনিয়নের চরবালিয়া গ্রামের পাশ দিয়ে বয়ে গেছে ঝিনাই নদী। সেই নদী থেকে বালু চক্রের কয়েকজন অসাধু ব্যক্তি প্রতিদিন মাটি কেটে ট্র্যাপে টাক্ট্রর দিয়ে উপজেলার বিভিন্ন জায়গায়তে বিক্রয় করছেন। এতে ঝিনাই নদীর উপড় নির্মিত দুই পাড়ে মানুষের যোগাযোগের এক মাত্র ব্রিজটি হুমকির মুখে পড়ে যাচ্ছেন। এতে বন্যা নিয়ন্ত্রণ বেড়িবাঁধ হুমকির মুখে পড়েছে। ক্ষতি হচ্ছে কাঁচা-পাকা অনেক রাস্তা। এভাবে দিনের পর দিন চলতে থাকলেও পানি উন্নয়ন বোর্ড কর্তৃপক্ষ কোনো খবর নিচ্ছেন না বলে জানিয়েছেন স্থানীয়রা।
সরেজমিন গিয়ে দেখে যায়, ঝিনাই নদীর তীরবর্তী চরবালিয়া ব্রীজ ও বেড়িবাঁধের খুব কাছ থেকে বালু চক্রের একটি মহল মাটি বাণিজ্য শুরু করেছে। ব্রিজের দুই পাশেই একেবারেই ঠিক নিকটতম জায়গা থেকে গত ২ মাস যাবত মাটি কেটে উপজেলার বিভিন্ন জায়গাতে বিক্রয় করে হাতিয়ে নিচ্ছে লক্ষ লক্ষ টাকা। প্রশাসনের নাকের ডগায় (নদীর) খাস জমি থেকে এমন মাটি বাণিজ্য যেন সত্যিই রহস্যজনক।
স্থানীয়রা জানান, নদীর খাস জমি থেকে ব্রিজের দুইপাশের খাস জমি থেকে মাটি কাটেন পৌরসভার সাতপোয়া গ্রামের প্রভাবশালী দুই ব্যক্তি। এভাবে প্রতিদিন মাটি কাটার ফলে চলাচলের এক মাত্র ব্রিজটি ভেঙে যাওয়ার উপক্রম হয়ে যাচ্ছে। মাটি টানার ট্রাক্টর গাড়ির কারেন, নবনির্মিত পাকা রাস্তার অবস্থা খারাপ করে ফেলছে। এসব বিষয়ে তাদেরকে বলার যেন কেউ নেই, এমন মন্তব্য করেন স্থানীয়রা।
স্থানীয় উপজেলা যুবলীগের সহ সম্পাদক কে এম রফিকুল ইসলাম জানান, এভাবে মাটি কাটার ফলে নদীর আশপাশে রাস্তা এবং জনগুরুত্ব পুর্ণ ব্রিজটি হুমকির মুখে পড়ে যাচ্ছে। ইতিমধ্যে গত বছরের বন্যায় ব্রিজের একটি পিলারের ঘোড়া থেকে মাটি সরে গেছে। ব্রিজটি এমনিতেই হুমকির মুখে রয়েছে। এভাবে মাটি কাটলে ব্রিজটি হারিয়ে যাবে।
ডোয়াইল ইউপি সদস্য আব্দুল মালেক বলেন, হাজারো মানুষের যাতায়াতে একটি মাত্র ব্রীজ চরবালিয়া ব্রীজ। এই ব্রীজের অতি নিকট থেকে বালু চক্রের একটি মহল প্রতিদিন লক্ষ লক্ষ  টাকা বালু বাণিজ্য করছেন। এতে বেড়িবাঁধের আশপাশে থাকা বসতবাড়ী, রাস্তা ঘাটসহ ব্রীজটি হুমকির মুখে পড়ে যাচ্ছেন। জনপ্রতিনিধি হিসেবে প্রসাশনের সু-দুষ্টি কামনা করছি।
ডোয়াইল ইউপি চেয়ারম্যান আব্দুর রাজ্জাক স্বপন বলেন, বিষয়টি প্রসাশনের নিকট জানানো হয়েছে। অবৈধভাবে বালু বাণিজ্য করার কারনে বেড়িবাঁধ, রাস্তা ও জন গুরুত্বপূর্ণ ব্রিজটি হুমকির মুখে পড়ে যাচ্ছে।
এবিষয়ে মাটি টানার ট্র্যাপে টাক্ট্ররের এক মালিক বলেন, নদীর ভিতরে যাদের জমি আছে তারাই মাটি বিক্রয় করছেন। যাদের মাটির প্রয়োজন তাদের কাছে এই মাটি বিক্রয় করা হয়।
এব্যাপারে উপজেলা নির্বাহী অফিসার (ভারপ্রাপ্ত) ও সহকারি কমিশনার (ভূমি) ফাইযুর ওয়াসিমা নাহাত বলেন, মাটি কাটার বিষয়টি জেনেছি। ইতিমধ্যে বালু উত্তোলন করার জন্য নিষেদ করা হয়েছে। তার পরও যদি বালু উত্তোলন করেন, তাহলে প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা নেওয়া হবে।
জনপ্রিয় সংবাদ

চট্টগ্রামে নির্ধারিত সময়ের আগেই কোরবানির পশুর বর্জ্যমুক্ত

সরিষাবাড়ীতে নদী থেকে মাটি কাটায় হুমকির মুখে ব্রিজ ও বেড়ীবাঁধ

আপডেট সময় ০৪:৩২:৪০ অপরাহ্ন, সোমবার, ৭ মার্চ ২০২২
শাকিল আহম্মেদ, সরিষাবাড়ী প্রতিনিধি:
জামালপুরের সরিষাবাড়ীতে প্রতিদিন নদী থেকে মাটি কাটায় হুমকির মুখে পড়েছে ব্রিজ, বেড়িবাঁধ ও চলাচলের নবনির্মিত পাকা রাস্তা। উপজেলার পৌর শহরঘেঁষা বলাদিয়ার ও ডোয়াইল ইউনিয়নের চরবালিয়া গ্রামের পাশ দিয়ে বয়ে গেছে ঝিনাই নদী। সেই নদী থেকে বালু চক্রের কয়েকজন অসাধু ব্যক্তি প্রতিদিন মাটি কেটে ট্র্যাপে টাক্ট্রর দিয়ে উপজেলার বিভিন্ন জায়গায়তে বিক্রয় করছেন। এতে ঝিনাই নদীর উপড় নির্মিত দুই পাড়ে মানুষের যোগাযোগের এক মাত্র ব্রিজটি হুমকির মুখে পড়ে যাচ্ছেন। এতে বন্যা নিয়ন্ত্রণ বেড়িবাঁধ হুমকির মুখে পড়েছে। ক্ষতি হচ্ছে কাঁচা-পাকা অনেক রাস্তা। এভাবে দিনের পর দিন চলতে থাকলেও পানি উন্নয়ন বোর্ড কর্তৃপক্ষ কোনো খবর নিচ্ছেন না বলে জানিয়েছেন স্থানীয়রা।
সরেজমিন গিয়ে দেখে যায়, ঝিনাই নদীর তীরবর্তী চরবালিয়া ব্রীজ ও বেড়িবাঁধের খুব কাছ থেকে বালু চক্রের একটি মহল মাটি বাণিজ্য শুরু করেছে। ব্রিজের দুই পাশেই একেবারেই ঠিক নিকটতম জায়গা থেকে গত ২ মাস যাবত মাটি কেটে উপজেলার বিভিন্ন জায়গাতে বিক্রয় করে হাতিয়ে নিচ্ছে লক্ষ লক্ষ টাকা। প্রশাসনের নাকের ডগায় (নদীর) খাস জমি থেকে এমন মাটি বাণিজ্য যেন সত্যিই রহস্যজনক।
স্থানীয়রা জানান, নদীর খাস জমি থেকে ব্রিজের দুইপাশের খাস জমি থেকে মাটি কাটেন পৌরসভার সাতপোয়া গ্রামের প্রভাবশালী দুই ব্যক্তি। এভাবে প্রতিদিন মাটি কাটার ফলে চলাচলের এক মাত্র ব্রিজটি ভেঙে যাওয়ার উপক্রম হয়ে যাচ্ছে। মাটি টানার ট্রাক্টর গাড়ির কারেন, নবনির্মিত পাকা রাস্তার অবস্থা খারাপ করে ফেলছে। এসব বিষয়ে তাদেরকে বলার যেন কেউ নেই, এমন মন্তব্য করেন স্থানীয়রা।
স্থানীয় উপজেলা যুবলীগের সহ সম্পাদক কে এম রফিকুল ইসলাম জানান, এভাবে মাটি কাটার ফলে নদীর আশপাশে রাস্তা এবং জনগুরুত্ব পুর্ণ ব্রিজটি হুমকির মুখে পড়ে যাচ্ছে। ইতিমধ্যে গত বছরের বন্যায় ব্রিজের একটি পিলারের ঘোড়া থেকে মাটি সরে গেছে। ব্রিজটি এমনিতেই হুমকির মুখে রয়েছে। এভাবে মাটি কাটলে ব্রিজটি হারিয়ে যাবে।
ডোয়াইল ইউপি সদস্য আব্দুল মালেক বলেন, হাজারো মানুষের যাতায়াতে একটি মাত্র ব্রীজ চরবালিয়া ব্রীজ। এই ব্রীজের অতি নিকট থেকে বালু চক্রের একটি মহল প্রতিদিন লক্ষ লক্ষ  টাকা বালু বাণিজ্য করছেন। এতে বেড়িবাঁধের আশপাশে থাকা বসতবাড়ী, রাস্তা ঘাটসহ ব্রীজটি হুমকির মুখে পড়ে যাচ্ছেন। জনপ্রতিনিধি হিসেবে প্রসাশনের সু-দুষ্টি কামনা করছি।
ডোয়াইল ইউপি চেয়ারম্যান আব্দুর রাজ্জাক স্বপন বলেন, বিষয়টি প্রসাশনের নিকট জানানো হয়েছে। অবৈধভাবে বালু বাণিজ্য করার কারনে বেড়িবাঁধ, রাস্তা ও জন গুরুত্বপূর্ণ ব্রিজটি হুমকির মুখে পড়ে যাচ্ছে।
এবিষয়ে মাটি টানার ট্র্যাপে টাক্ট্ররের এক মালিক বলেন, নদীর ভিতরে যাদের জমি আছে তারাই মাটি বিক্রয় করছেন। যাদের মাটির প্রয়োজন তাদের কাছে এই মাটি বিক্রয় করা হয়।
এব্যাপারে উপজেলা নির্বাহী অফিসার (ভারপ্রাপ্ত) ও সহকারি কমিশনার (ভূমি) ফাইযুর ওয়াসিমা নাহাত বলেন, মাটি কাটার বিষয়টি জেনেছি। ইতিমধ্যে বালু উত্তোলন করার জন্য নিষেদ করা হয়েছে। তার পরও যদি বালু উত্তোলন করেন, তাহলে প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা নেওয়া হবে।