বাংলাদেশ ১০:৪৩ অপরাহ্ন, শনিবার, ২৪ ফেব্রুয়ারী ২০২৪, ১২ ফাল্গুন ১৪৩০ বঙ্গাব্দ
নোটিশ :

সাংবাদিক নিয়োগ চলছে,, সাংবাদিক নিয়োগ চলছে,,০১৯৯৯-৯৫৩৯৭০, ০১৭১২-৪৪৬৩০৬,০১৭১১-০০৬২১৪ সম্পাদক

     
ব্রেকিং নিউজ ::
নাটোরের বড়াইগ্রামে বর্ণিল আয়োজনে পিঠা উৎসব ও বসন্ত বরণ। পঞ্চগড়ের বোদায় ট্যাপেন্ডাডল ট্যাবলেটসহ ২ জন মাদক ব্যবসায়ী গ্রেফতার। রায়গঞ্জের বিভিন্ন গাছে গাছে দেখা যাচ্ছে আমের মুকুল মুক্তিযোদ্বা প্রজন্ম লীগ সভাপতিকে কুপিয়ে জখমকে কেন্দ্র করে পিরোজপুর শহরে উত্তেজনা রাবিতে চাঁদপুর পরিবারের নেতৃত্বে ইমন-রাহিম ঝালকাঠিতে ৮টি গাঁজাগাছ ও ১৫পিস ইয়াবাসহ আটক-২ ঝালকাঠির নবগ্রামের শতবর্ষী রেইন্ট্রি গাছ নিয়ে গুনাই বিবি নাটকের রূপ কথার গল্প চার শিশুর জন্ম দিল এক মা। শিশুরা সবাই সুস্থ আছেন। ভান্ডারিয়ায় ৯৬ হাজার স্মার্ট জাতীয় পরিচয়পত্র বিতরণে শুভ উদ্বোধন বিপুল পরিমাণে গাঁজাসহ ০২ জন মাদক কারবারী কে গ্রেফতার করেছে র‌্যাব-৪: মাদক পরিবহণে ব্যবহৃত পিকআপ জব্দ। ওয়াশিংটনে পিঠা উৎসব ও বসন্ত বরণে রাবিয়ানদের মিলন মেলা অতিথি পাখির অভ্যায়রণ্য রানীশংকেলের রামরাই দিঘি তানোরে জিয়ারুল হত্যার ঘটনায় ১৫ জনের নামে মামলা তানোরে পূর্বশত্রুতার জের ধরে ক্ষতবিক্ষত অবস্থায় রাস্তা থেকে উদ্ধার হলো মরদেহ বরুন হত্যা মামলার পলাতক আসামীকে গ্রেফতার

জয়পুরহাটে শীর্ষ মাদক ব্যবসায়ী র‍্যাবের হাতে গ্রেফতার ২

  • নিজস্ব সংবাদ :
  • আপডেট সময় ০৬:১৭:২৬ অপরাহ্ন, সোমবার, ২ মে ২০২২
  • ১৬৮২ বার পড়া হয়েছে

জয়পুরহাটে শীর্ষ মাদক ব্যবসায়ী র‍্যাবের হাতে গ্রেফতার ২

 

নিরেন দাস,জয়পুরহাট জেলা প্রতিনিধিঃ-  
জয়পুরহাট জেলার কালাই থানাধীন মাত্রাই ইউনিয়নের মাত্রাই বাজার থেকে গোবিন্দগঞ্জগামী পাকা রাস্তা সংলগ্ন বানদিঘী শাহজালাল নুরানী হাফেজিয়া মাদ্রাসা ও এতিমখানার সামনে অভিযান পরিচালনা করে ট্যাপেন্টাডল ট্যাবলেট-৩১৮ পিসসহ আসামীদের গ্রেফতার করা হয়৷ শীর্ষ মাদক ব্যবসায়ী মোঃ সবুজ ওরফে ময়েন উদ্দীন (৩৫)ও আবু তালহা তারিকুলকে গ্রেফতার করেছে রাপিড অ্যাকশন ব্যাটালিয়ান র‌্যাব-৩ সদস্যরা।
রবিবার (১লা মে রাতেই তাদেরকে কালাই থানায় হস্তান্তর করা হয়েছে। র‍্যাবের হাতে গ্রেফতার সবুজ ওরফে ময়েন উদ্দীন(৩৫) জয়পুরহাটের কালাই উদয়পুর ইউনিয়ের মান্দাই গ্রামের মৃত আফসার আলীর ছেলে৷ ও তারিকুল ইসলাম (৩২) একই উপজেলার আকলা পাড়া গ্রামের বিএমপির সাবেক ইউনুস মেম্বারের ছেলে৷ র‌্যাব-৫, সিপিসি-৩, জয়পুরহাট র‌্যাব ক্যাম্পের একটি চৌকশ অপারেশনাল দল কোম্পানী উপ-অধিনায়ক সহকারি পুলিশ সুপার মোঃ মাসুদ রানা এবং কোম্পানী উপ-অধিনায়ক সহকারি পুলিশ সুপার মোঃ আমিনুল ইসলাম এর নেতৃত্বে রবিবার রাতে সুনির্দিষ্ট তথ্যের ভিত্তিতে রোববার (১লা মে রাত ১১টা ৩০ মিনিটে তাদেরকে গ্রেফতার করেন৷ জয়পুরহাটের কালাইয়ে উপজেলার বিভিন্ন স্থানেই প্রতিনিয়ত চলছে মাদক বিরোধী অভিযান।
এতে অনেকাংশেই গ্রেফতার হচ্ছে ছিচকে মাদক বিক্রেতা ও মাদক সেবনকারীসহ চিহ্নিতরাও। কিন্তু ধরা ছোয়ার বাহিরে্ই রয়েছিল চিহ্নিত এই মাদক ব্যবসায়ী ও একাধিক মামলার আসামী সবুজ ওরফে ময়েন (৩৫) সে কালাই উপজেলার উদয়পুর এলাকার মান্দাই গ্রামের মৃত্য আফসার আলীর ছেলে। কালাই থানার ভারপ্রপ্ত কর্মকর্তা ওসি এস এম মইনুউদ্দিন এর কঠোর নির্দেশনার পর ইতোমধ্যেই গাঁ ঢাকা দিতে শুরু করেছে বিভিন্ন অপরাধীরা।
সম্প্রতি শনিবার (১৬ এপ্রিল) সন্ধ্যায় উপজেলার মোসলেমঞ্জ বাজারে এলাকায় তাকে গ্রেফতারে অভিযান চালিয়েছে কালাই থানা পুলিশ তবে পুলিশের সতর্কতার অভিযানকে তকমা লাগিয়ে রহস্যজনক ভাবেই পালিয়ে গেছে মাদক ব্যবসায়ী সবুজ ওরফে ময়েন৷ স্থানীয় ও এলাকাবাসি অনেকেই অভিযোগ করে বলেন, শীর্ষ মাদক ব্যবসায়ী সুবুজ ওরফে ময়েন এলাকার প্রভাবশালীদের শেল্টারেই এমন অপরাধ করে যাচ্ছে এবং তার নিকট আত্মিয় আনারুল ও বড় ভাই আনসারের শেল্টার দাতা ও শেল্টার দাতাদের সকলেই খুব ভালো করে চিনলেও কেউ তাদের নাম বলতে সাহস পায়না।
এলাকার বিভিন্ন সমাবেশে থেকে চুরি ডাকাতি সকল অপর্কমের সংঙ্গে জরিত এই সবুজ এদের পরিবারের সবায় মাদকের সংঙ্গে জরিত শুনলাম আজ শীর্ষ এই মাদক ব্যবসায়ী ময়েন সহ দুই জন গ্রেফতার হয়েছে মাদকের ভয়াল ছোবল থেকে রক্ষা পাবে যুবসমাজ। এদিকে পুলিশের একাধিক টিম গত কয়েকদিন উপজেলার বিভিন্ন এলাকায় সাড়াসী অভিযান চালিয়েও শীর্ষ মাদক ব্যবসায়ী সবুজকে আটক করতে পারেনি। এ বিষয়ে কালাই থানা অফিসার ইনর্চাজ এস এম মনুইন উদ্দিন বলেন সবুজ একজন তালিকাভুক্ত আসামী। তাকে গ্রেফতারে আমাদের অভিযান অব্যাহত রয়েছে ওইদিন আমাদের পুলিশ গোপন তথ্যানুযায়ী অভিযান চালিয়েছিল কিন্তু সে আমাদের অবস্থান টের পেয়ে পালিয়ে গেছে।
প্রসঙ্গত, গত বছর কালাই পুনুট এলাকায় থেকে ডাকাতির মামলাসহ মাদক সম্রাট সবুজ কে গ্রেপ্তার করেন গত বছর কালাই থানা পুলিশের একটি টিম। এ ঘটনায় মাদক সম্রাট সবুজের নামে পাঁচবিবি থানায় ২টি মামলা কালাই থানায় ৩টি মামলা চলোমান প্রায় কয়েক মাস আগে জয়পুরহাট জেলা কারাগারে ছিলেন । পরবর্তীতে এখনো বহাল তবিয়তে সেই শীর্ষ মাদক সম্রাট সবুজ ওরফে ময়েন উদ্দীন৷ প্রাথমিক জিজ্ঞাসাবাদে সবুজ ওরফে ময়েন উদ্দীন দীর্ঘদিন জয়পুরহাট জেলার বিভিন্ন এলাকায় অবৈধ নেশা জাতীয় মাদকদ্রব্য বিক্রির সঙ্গে জড়িত বলে স্বীকার করেছেন। সবুজ ওরফে ময়েনের নামে বিভিন্ন থানায় চলোমান ৬টি মামলা রয়েছে তাদের বিরুদ্ধে মাদকদ্রব্য নিয়ন্ত্রণ আইনে মামলা দায়েরের পর উদ্ধারকৃত মাদকসহ সোমবার দুপুরে জেলহাজতে পাঠানো হয়েছে।
আপলোডকারীর তথ্য

Banglar Alo News

hello
জনপ্রিয় সংবাদ

নাটোরের বড়াইগ্রামে বর্ণিল আয়োজনে পিঠা উৎসব ও বসন্ত বরণ।

জয়পুরহাটে শীর্ষ মাদক ব্যবসায়ী র‍্যাবের হাতে গ্রেফতার ২

আপডেট সময় ০৬:১৭:২৬ অপরাহ্ন, সোমবার, ২ মে ২০২২

 

নিরেন দাস,জয়পুরহাট জেলা প্রতিনিধিঃ-  
জয়পুরহাট জেলার কালাই থানাধীন মাত্রাই ইউনিয়নের মাত্রাই বাজার থেকে গোবিন্দগঞ্জগামী পাকা রাস্তা সংলগ্ন বানদিঘী শাহজালাল নুরানী হাফেজিয়া মাদ্রাসা ও এতিমখানার সামনে অভিযান পরিচালনা করে ট্যাপেন্টাডল ট্যাবলেট-৩১৮ পিসসহ আসামীদের গ্রেফতার করা হয়৷ শীর্ষ মাদক ব্যবসায়ী মোঃ সবুজ ওরফে ময়েন উদ্দীন (৩৫)ও আবু তালহা তারিকুলকে গ্রেফতার করেছে রাপিড অ্যাকশন ব্যাটালিয়ান র‌্যাব-৩ সদস্যরা।
রবিবার (১লা মে রাতেই তাদেরকে কালাই থানায় হস্তান্তর করা হয়েছে। র‍্যাবের হাতে গ্রেফতার সবুজ ওরফে ময়েন উদ্দীন(৩৫) জয়পুরহাটের কালাই উদয়পুর ইউনিয়ের মান্দাই গ্রামের মৃত আফসার আলীর ছেলে৷ ও তারিকুল ইসলাম (৩২) একই উপজেলার আকলা পাড়া গ্রামের বিএমপির সাবেক ইউনুস মেম্বারের ছেলে৷ র‌্যাব-৫, সিপিসি-৩, জয়পুরহাট র‌্যাব ক্যাম্পের একটি চৌকশ অপারেশনাল দল কোম্পানী উপ-অধিনায়ক সহকারি পুলিশ সুপার মোঃ মাসুদ রানা এবং কোম্পানী উপ-অধিনায়ক সহকারি পুলিশ সুপার মোঃ আমিনুল ইসলাম এর নেতৃত্বে রবিবার রাতে সুনির্দিষ্ট তথ্যের ভিত্তিতে রোববার (১লা মে রাত ১১টা ৩০ মিনিটে তাদেরকে গ্রেফতার করেন৷ জয়পুরহাটের কালাইয়ে উপজেলার বিভিন্ন স্থানেই প্রতিনিয়ত চলছে মাদক বিরোধী অভিযান।
এতে অনেকাংশেই গ্রেফতার হচ্ছে ছিচকে মাদক বিক্রেতা ও মাদক সেবনকারীসহ চিহ্নিতরাও। কিন্তু ধরা ছোয়ার বাহিরে্ই রয়েছিল চিহ্নিত এই মাদক ব্যবসায়ী ও একাধিক মামলার আসামী সবুজ ওরফে ময়েন (৩৫) সে কালাই উপজেলার উদয়পুর এলাকার মান্দাই গ্রামের মৃত্য আফসার আলীর ছেলে। কালাই থানার ভারপ্রপ্ত কর্মকর্তা ওসি এস এম মইনুউদ্দিন এর কঠোর নির্দেশনার পর ইতোমধ্যেই গাঁ ঢাকা দিতে শুরু করেছে বিভিন্ন অপরাধীরা।
সম্প্রতি শনিবার (১৬ এপ্রিল) সন্ধ্যায় উপজেলার মোসলেমঞ্জ বাজারে এলাকায় তাকে গ্রেফতারে অভিযান চালিয়েছে কালাই থানা পুলিশ তবে পুলিশের সতর্কতার অভিযানকে তকমা লাগিয়ে রহস্যজনক ভাবেই পালিয়ে গেছে মাদক ব্যবসায়ী সবুজ ওরফে ময়েন৷ স্থানীয় ও এলাকাবাসি অনেকেই অভিযোগ করে বলেন, শীর্ষ মাদক ব্যবসায়ী সুবুজ ওরফে ময়েন এলাকার প্রভাবশালীদের শেল্টারেই এমন অপরাধ করে যাচ্ছে এবং তার নিকট আত্মিয় আনারুল ও বড় ভাই আনসারের শেল্টার দাতা ও শেল্টার দাতাদের সকলেই খুব ভালো করে চিনলেও কেউ তাদের নাম বলতে সাহস পায়না।
এলাকার বিভিন্ন সমাবেশে থেকে চুরি ডাকাতি সকল অপর্কমের সংঙ্গে জরিত এই সবুজ এদের পরিবারের সবায় মাদকের সংঙ্গে জরিত শুনলাম আজ শীর্ষ এই মাদক ব্যবসায়ী ময়েন সহ দুই জন গ্রেফতার হয়েছে মাদকের ভয়াল ছোবল থেকে রক্ষা পাবে যুবসমাজ। এদিকে পুলিশের একাধিক টিম গত কয়েকদিন উপজেলার বিভিন্ন এলাকায় সাড়াসী অভিযান চালিয়েও শীর্ষ মাদক ব্যবসায়ী সবুজকে আটক করতে পারেনি। এ বিষয়ে কালাই থানা অফিসার ইনর্চাজ এস এম মনুইন উদ্দিন বলেন সবুজ একজন তালিকাভুক্ত আসামী। তাকে গ্রেফতারে আমাদের অভিযান অব্যাহত রয়েছে ওইদিন আমাদের পুলিশ গোপন তথ্যানুযায়ী অভিযান চালিয়েছিল কিন্তু সে আমাদের অবস্থান টের পেয়ে পালিয়ে গেছে।
প্রসঙ্গত, গত বছর কালাই পুনুট এলাকায় থেকে ডাকাতির মামলাসহ মাদক সম্রাট সবুজ কে গ্রেপ্তার করেন গত বছর কালাই থানা পুলিশের একটি টিম। এ ঘটনায় মাদক সম্রাট সবুজের নামে পাঁচবিবি থানায় ২টি মামলা কালাই থানায় ৩টি মামলা চলোমান প্রায় কয়েক মাস আগে জয়পুরহাট জেলা কারাগারে ছিলেন । পরবর্তীতে এখনো বহাল তবিয়তে সেই শীর্ষ মাদক সম্রাট সবুজ ওরফে ময়েন উদ্দীন৷ প্রাথমিক জিজ্ঞাসাবাদে সবুজ ওরফে ময়েন উদ্দীন দীর্ঘদিন জয়পুরহাট জেলার বিভিন্ন এলাকায় অবৈধ নেশা জাতীয় মাদকদ্রব্য বিক্রির সঙ্গে জড়িত বলে স্বীকার করেছেন। সবুজ ওরফে ময়েনের নামে বিভিন্ন থানায় চলোমান ৬টি মামলা রয়েছে তাদের বিরুদ্ধে মাদকদ্রব্য নিয়ন্ত্রণ আইনে মামলা দায়েরের পর উদ্ধারকৃত মাদকসহ সোমবার দুপুরে জেলহাজতে পাঠানো হয়েছে।