বাংলাদেশ ১১:৫০ পূর্বাহ্ন, বুধবার, ২৪ জুলাই ২০২৪, ৯ শ্রাবণ ১৪৩১ বঙ্গাব্দ
নোটিশ :

সাংবাদিক নিয়োগ চলছে,, সাংবাদিক নিয়োগ চলছে,,০১৯৯৯-৯৫৩৯৭০, ০১৭১২-৪৪৬৩০৬,০১৭১১-০০৬২১৪ সম্পাদক

     
ব্রেকিং নিউজ ::
মুন্সীগঞ্জ সদর ইউএনওর চরডুমুরিয়া সরকারী প্রাথমিক বিদ্যালয় পরিদর্শন সন্ধ্যার মধ্যে উপাচার্য, শিক্ষক, কর্মকর্তা-কর্মচারীদের বাসভবন ছাড়ার আল্টিমেটাম কুবি শিক্ষার্থীদের রাবিতে জড়ো হওয়া আন্দোলনকারীদের পুলিশ-বিজিবির ধাওয়া মেহেন্দিগঞ্জে অজ্ঞাতনামা নারীর অর্ধগলিত লাশ উদ্ধার। মুন্সীগঞ্জে গায়েবানা জানাযা থেকে ঈমাম ও বিএনপি নেতাকে ধরে নিয়ে গেলো পুলিশ কোটা আন্দোলনের পক্ষে সংহতি জানিয়ে ফেনী ইউনিভার্সিটির বর্তমান ও প্রাক্তন শিক্ষার্থীদের বিবৃতি চলমান পরিস্থিতিতে রাবি ক্যাম্পাসে ছাত্র রাজনীতি আপাতত স্থগিত: উপাচার্য বিদেশের পাঠানো টাকা চাইতে গিয়ে বিপাকে প্রবাসী স্বামী রাজশাহীতে ধর্মীয় ভাবগাম্ভীর্যের মধ্য দিয়ে পবিত্র আশুরা পালিত চট্রগ্রামের কোটা সংস্কার আন্দোলনে নিহত ওয়াসিমের জানাজায় মানুষের ঢল পিরোজপুরের মঠবাড়িয়া পৌরসভার রাস্তায় সমবায় সমিতি ভবনের ট্যাংকির ময়লা: জনদুর্ভোগ মুন্সীগঞ্জে কোটা সংস্কার আন্দোলনকারীদের উপর হামলা, আহত ৫ হরিপুরে, প্রগতি লাইফ ইন্স্যুরেন্স লিমিটেড এর পক্ষ থেকে কর্মী মিটিং ও গ্রাহক সমাবেশ অনুষ্ঠিত। গৌরীপুরে উদীচী কার্য়ালয়ে হামলা ও ভাংচুর স্ত্রীর যৌতুক মামলায় প্রাথমিক বিদ্যালয়ের শিক্ষক কারাগারে

মিধিলি’র প্রভাবে ধান-আলু চাষে বিড়ম্বনা জমিতে জলাবদ্ধতা 

  • নিজস্ব সংবাদ :
  • আপডেট সময় ০৪:৪৬:৪৪ অপরাহ্ন, শনিবার, ১৮ নভেম্বর ২০২৩
  • ১৬৫২ বার পড়া হয়েছে

মিধিলি’র প্রভাবে ধান-আলু চাষে বিড়ম্বনা জমিতে জলাবদ্ধতা 

ফাহাদ মোল্লা মুন্সিগঞ্জ প্রতিনিধিঃ 
ঝূর্ণিঝড় মিধিলি’র প্রভাবে মুন্সিগঞ্জের বিভিন্ন স্থানে বীজতলায় জলাবদ্ধতার সৃষ্টি হয়েছে। শুক্রবার গভীর রাত থেকে এই অঞ্চলে গুড়িগুড়ি শুরু হয়। বেলা বাড়তেই বৃষ্টির পরিমাণ বাড়তে থাকে। বিকালের দিকে বৃষ্টির সাথে বাতাসের তান্ডবে গাছ-পালা ভেঙ্গে পড়ে। অতি বৃষ্টিতে ধানের বীজতলাসহ আবাদি জমিতে পানি জমে। এছাড়া উপজেলার বিভিন্ন স্থানে আগাম সরিষা ও শাক-সবজির ক্ষতিসাধন হওয়ার খবর পাওয়া যায়। এতে প্রান্তিক কৃষকদের কপালে দুশ্চিন্তার ভাঁজ পড়ে। অপরদিকে প্রায় শুকনা জমিতে বৃষ্টির পানি জমায় ধান ও আলু চাষীরা ফসল চাষে বিড়ম্বনায় পড়েছেন।
খোঁজ নিয়ে জানা গেছে, উপজেলায় বোরো মৌসুমকে সামনে রেখে কৃষকরা প্রস্তুতি নিচ্ছিলেন। উপজেলায় প্রায় ১০ হাজার হেক্টর জমিতে ধান চাষের জন্য প্রস্তুতি নেওয়া হচ্ছিল। এর মধ্যে বির্স্তীণ আড়িয়ল বিলের শ্রীনগর উপজেলা অংশেই ৫ হাজার হেক্টর জমিতে আগাম ধান চাষের জন্য স্থানীয় কৃষকরা জমি পরিস্কার-পরিচ্ছন্নতা ও বীজতলা প্রস্তুতের কর্মযজ্ঞ শুরু করেন।
এছাড়া উপজেলায় প্রায় ৫৭৫ হেক্টার জমিতে আগাম সরিষা, প্রায় ৬০০ হেক্টর জমিতে মৌসুমী শাক-সবজি ও প্রায় ২৩০০ হেক্টর জমিতে আলু চাষের লক্ষ্যে কৃষকরা মাঠে প্রস্তুতি নেন। তবে মিধিলি’র প্রভাবে শতশত কৃষকের চোখে মুখে পড়েছে দুশ্চিন্তার ছাপ। অসময়ের বৃষ্টি এখন কৃষকদের সামনে চ্যালেঞ্জ হয়ে দাড়িয়েছে। এমনটাই ধারনা করছেন ভুক্তভোগীরা।
শনিবার সরেজমিনে ঘুরে দেখা গেছে, আড়িয়ল বিল এলাকার শ্রীধরপুর, মদনখালী, বাড়ৈখালী,আলমপুর, গাদিঘাট,দয়হাটা, কুকুটিয়া, পাটাভোগ, আটপাড়া, বীরতারাসহ বিভিন্ন চকে রবি শস্য আবাদি জমিতে বৃষ্টির পানি বৃদ্ধি পাচ্ছে। এতে বিভিন্ন ধানের বীজতলায় জলাবদ্ধতার সৃষ্টি হয়েছে। আলু চাষের জমিগুলো হালচাষের প্রস্তুতি নেওয়া হচ্ছিল। বৃষ্টির ফলে কিছুটা বিড়ম্বনার শিকার হচ্ছে।
কুকুটিয়ার আলম হোসেন জানান, আলু চাষের জন্য প্রস্তুতি নিচ্ছি। বৃষ্টিতে আলুর জমিতে ফের পানি জমেছে। শুকনো জমিতে এখন বৃষ্টির পানি। এছাড়া আমার ধানের বীজতলা ডুবে গেছে।
বীরতারার আমির হোসেন জানান, আমাদের এলাকায় ধানের বীজতলা করা হচ্ছে। এছাড়া জমিতে মাত্র সরিষার বীজ ফুঁটেছে উঠেছে। এ অবস্থায় বৃষ্টিতে কৃষিতে ব্যাপক ক্ষতির আশঙ্কা করা হচ্ছে। প্রায় ২১ একর সরিষার জমি নষ্ট হওয়ার শঙ্কা করেন তিনি।
স্থানীয় কৃষি অফিস সূত্র জানায়, ঘূর্ণিঝড় মিধিলি’র পূর্বাভাস আমরা আগেই কৃষককে জানিয়েছি যেন রবিশস্য বৃষ্টির পর রোপণ করেন। বৃষ্টিতে সরিষা ক্ষতিগ্রস্ত হয়েছে। বৃষ্টি দীর্ঘস্থায়ী হয় তাহলে ক্ষতির পরিমান বাড়বে এবং রবিশস্য আবাদ বিলম্ব হবে।
আপলোডকারীর তথ্য

Banglar Alo News

hello
জনপ্রিয় সংবাদ

মুন্সীগঞ্জ সদর ইউএনওর চরডুমুরিয়া সরকারী প্রাথমিক বিদ্যালয় পরিদর্শন

মিধিলি’র প্রভাবে ধান-আলু চাষে বিড়ম্বনা জমিতে জলাবদ্ধতা 

আপডেট সময় ০৪:৪৬:৪৪ অপরাহ্ন, শনিবার, ১৮ নভেম্বর ২০২৩
ফাহাদ মোল্লা মুন্সিগঞ্জ প্রতিনিধিঃ 
ঝূর্ণিঝড় মিধিলি’র প্রভাবে মুন্সিগঞ্জের বিভিন্ন স্থানে বীজতলায় জলাবদ্ধতার সৃষ্টি হয়েছে। শুক্রবার গভীর রাত থেকে এই অঞ্চলে গুড়িগুড়ি শুরু হয়। বেলা বাড়তেই বৃষ্টির পরিমাণ বাড়তে থাকে। বিকালের দিকে বৃষ্টির সাথে বাতাসের তান্ডবে গাছ-পালা ভেঙ্গে পড়ে। অতি বৃষ্টিতে ধানের বীজতলাসহ আবাদি জমিতে পানি জমে। এছাড়া উপজেলার বিভিন্ন স্থানে আগাম সরিষা ও শাক-সবজির ক্ষতিসাধন হওয়ার খবর পাওয়া যায়। এতে প্রান্তিক কৃষকদের কপালে দুশ্চিন্তার ভাঁজ পড়ে। অপরদিকে প্রায় শুকনা জমিতে বৃষ্টির পানি জমায় ধান ও আলু চাষীরা ফসল চাষে বিড়ম্বনায় পড়েছেন।
খোঁজ নিয়ে জানা গেছে, উপজেলায় বোরো মৌসুমকে সামনে রেখে কৃষকরা প্রস্তুতি নিচ্ছিলেন। উপজেলায় প্রায় ১০ হাজার হেক্টর জমিতে ধান চাষের জন্য প্রস্তুতি নেওয়া হচ্ছিল। এর মধ্যে বির্স্তীণ আড়িয়ল বিলের শ্রীনগর উপজেলা অংশেই ৫ হাজার হেক্টর জমিতে আগাম ধান চাষের জন্য স্থানীয় কৃষকরা জমি পরিস্কার-পরিচ্ছন্নতা ও বীজতলা প্রস্তুতের কর্মযজ্ঞ শুরু করেন।
এছাড়া উপজেলায় প্রায় ৫৭৫ হেক্টার জমিতে আগাম সরিষা, প্রায় ৬০০ হেক্টর জমিতে মৌসুমী শাক-সবজি ও প্রায় ২৩০০ হেক্টর জমিতে আলু চাষের লক্ষ্যে কৃষকরা মাঠে প্রস্তুতি নেন। তবে মিধিলি’র প্রভাবে শতশত কৃষকের চোখে মুখে পড়েছে দুশ্চিন্তার ছাপ। অসময়ের বৃষ্টি এখন কৃষকদের সামনে চ্যালেঞ্জ হয়ে দাড়িয়েছে। এমনটাই ধারনা করছেন ভুক্তভোগীরা।
শনিবার সরেজমিনে ঘুরে দেখা গেছে, আড়িয়ল বিল এলাকার শ্রীধরপুর, মদনখালী, বাড়ৈখালী,আলমপুর, গাদিঘাট,দয়হাটা, কুকুটিয়া, পাটাভোগ, আটপাড়া, বীরতারাসহ বিভিন্ন চকে রবি শস্য আবাদি জমিতে বৃষ্টির পানি বৃদ্ধি পাচ্ছে। এতে বিভিন্ন ধানের বীজতলায় জলাবদ্ধতার সৃষ্টি হয়েছে। আলু চাষের জমিগুলো হালচাষের প্রস্তুতি নেওয়া হচ্ছিল। বৃষ্টির ফলে কিছুটা বিড়ম্বনার শিকার হচ্ছে।
কুকুটিয়ার আলম হোসেন জানান, আলু চাষের জন্য প্রস্তুতি নিচ্ছি। বৃষ্টিতে আলুর জমিতে ফের পানি জমেছে। শুকনো জমিতে এখন বৃষ্টির পানি। এছাড়া আমার ধানের বীজতলা ডুবে গেছে।
বীরতারার আমির হোসেন জানান, আমাদের এলাকায় ধানের বীজতলা করা হচ্ছে। এছাড়া জমিতে মাত্র সরিষার বীজ ফুঁটেছে উঠেছে। এ অবস্থায় বৃষ্টিতে কৃষিতে ব্যাপক ক্ষতির আশঙ্কা করা হচ্ছে। প্রায় ২১ একর সরিষার জমি নষ্ট হওয়ার শঙ্কা করেন তিনি।
স্থানীয় কৃষি অফিস সূত্র জানায়, ঘূর্ণিঝড় মিধিলি’র পূর্বাভাস আমরা আগেই কৃষককে জানিয়েছি যেন রবিশস্য বৃষ্টির পর রোপণ করেন। বৃষ্টিতে সরিষা ক্ষতিগ্রস্ত হয়েছে। বৃষ্টি দীর্ঘস্থায়ী হয় তাহলে ক্ষতির পরিমান বাড়বে এবং রবিশস্য আবাদ বিলম্ব হবে।